ঢাকা, সোমবার, ১৬ মাঘ ১৪২৯, ৩০ জানুয়ারি ২০২৩, ০৭ রজব ১৪৪৪

ট্রাভেলার্স নোটবুক

খেতে ভুলবেন না আইনচি

বাংলানিউজ ট্রাভেল টিম | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০৪৫ ঘণ্টা, আগস্ট ৩১, ২০১৪
খেতে ভুলবেন না আইনচি ছবি : দেলোয়ার হোসেন বাদল, বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

টেকনাফ, কক্সবাজার থেকে: টেকনাফ শহরে ঢুকেই আমাদের নজর কাড়লো ফলটি। আমড়া, পেয়ারা, জাম্বুরার সঙ্গে খয়েরি রঙের ফলটি সব দোকানীর কাছে দেখা গেছে।

দেখতে কাঠবাদাম বা কচ্ছপের ছোট বাচ্চার মতো বলা যায়। রিকশাওয়ালার কাছে জানা গেল ‘মগগুলা’। ধারণা করলাম, মোগল থেকে মোগলাই, মগ থেকে মগগুলা- এমন কিছু হবে হয়তো!

যাই হোক, দুপুরে উদর পূর্তি করে বেরিয়ে পড়লাম শহরে প্রধান বাজারে। ভ্রমণে বেরিয়ে সে এলাকার মিষ্টি খেতে ভোলেন না অনেকে। বলা হয়, মিষ্টিতে এলাকা চেনা যায়। ফলের ক্ষেত্রেও এমনটি হয় কখনো কখনো। অনেকটা রাজশাহীর আম, দিনাজপুরের লিচুর মতো।

মিষ্টির দোকান চোখে না পড়লেও যে ফলটি আমাদের বারবার আকর্ষণ করছিল তার নাম মগগুলা। মগগুলা অবশ্য আমাদের জন্য, স্থানীয়দের জন্য নাম আইনচি।

আপনাদের জন্য কেন আইনচি? জিজ্ঞেস করলে কয়েকজন বিক্রেতা জানালেন একই কথা- আইনচি বললে আপনারা চিনবেন না।

বেশ অবাক হলাম তাদের কথায়। আইনচি যাদের কাছে অপিরিচিত তারা মগগুলাই বা চিনবে কী করে?

ফলটি আমাদের নয়, সুদর্শনা নাফ নদীর কোলঘেঁষা দেশ মায়ানমারের। তবে এমনভাবে স্থানীয় বাজার, মানুষের মন দখল করে বসেছে যেন ফলটি যতটা না তাদের, তার চেয়ে বেশি আমাদের!

খেতে কেমন লাগে আর কীভাবে খেতে হয় তা নিয়ে নানা প্রশ্ন জাগছিল আমাদের। এক দোকানী অনেকটা জোর করে বললেন, খেয়েই দেখেন না। সাহস করে নিলাম ছয় পিস। মসলা দিয়ে মাখো মাখো ঝোলে সিদ্ধ করা মগগুলা অনেকটা আলুর মতো। একটু তিতা ভাব আছে।

ফলটির গুণ অনেক। জানা গেলো, ডায়াবেটিসের জন্য দারুণ উপকারী। , পেটের যে কোনো সমস্যা সমাধানের জন্য এর জুড়ি নেই। স্থানীয়রা ফলটি সকাল বিকেল সন্ধ্যে খান। তাদের কাছে এটি সবচেয়ে পছন্দের খাবার।

বিক্রেতারা প্রতিটি ফল মায়ানমার থেকে কেনেন দেড় টাকায়। আর বিক্রি আড়াই টাকা। পাঁচফোড়ন দিয়ে হালকা আঁচে সিদ্ধ করে বিক্রি হয়। একেকজন অনায়াসে খেতে পারেন ৮-১০ পিস।

ফলের গাছটি দেখেন নি অধিকাংশই। তারা শুধু জানেন, বড় বড় গাছে ফলটি হয়। তবে উপকারের কথা ভেবে খাওয়া মিস করেন না কেউ। ফুটপাতের খোলা দোকানের পাশে বসে খেতে থাকা ক্রেতারা জানালেন এমনটি।

বঙ্গোপসাগরের সুন্দরতম সন্তান টেকনাফে এসে বার্মিজ আচার ও কাপড় কিনতে ব্যস্ত হয়ে গেলেও স্বাস্থ্যকর মগগুলা বা আইনচি খেতে কেউ ভুলবেন না যেন!

** সোনাদিয়া, সম্ভাবনাময় সোনার দ্বীপ
** মিষ্টি পানের সবুজ দ্বীপ
** খাবারের সন্ধানে সাঁতারু গাভী!
** অটল পাহাড়ের বুকে উদ্দাম সাগর
** শারদ মেঘের দেশে, পাখির ডানায় ভেসে
** গরম গরম ফিশ ফ্রাই
** মহাপতঙ্গের পেটে একঘণ্টা!
** রিজেন্টে ফ্রি কক্সবাজার দর্শন


বাংলাদেশ সময়: ১০৩৪ ঘণ্টা, আগস্ট ৩১, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa