ঢাকা, বুধবার, ৫ মাঘ ১৪২৮, ১৯ জানুয়ারি ২০২২, ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

খেলা

মোহামেডানের বিপক্ষে ষড়য়ন্ত্রের অভিযোগ মানিকের

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৮, ২০১১
মোহামেডানের বিপক্ষে ষড়য়ন্ত্রের অভিযোগ মানিকের

ঢাকা: দেশের ঐতিহ্যবাহী ঢাকা মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবকে ধ্বংস করার ষড়যন্ত্রের অভিযোগ তুলেছেন দলটির কোচ শফিকুল ইসলাম মানিক। শুক্রবার মুক্তিযোদ্ধা সংসদের বিপক্ষে ম্যাচে হারের পর এমন অভিযোগ তুলেন জাতীয় দলের এ সাবেক খেলোয়াড় ও কোচ।


 
লিগে টানা তিন ম্যাচ জয়ের পর এখন উল্টো পথে যাত্রা করেছে তিন আসরের রানার্স আপরা। রহমতগঞ্জ ও ব্রাদার্সের বিপক্ষে আগের দুটি ম্যাচে হারার পর শুক্রবার মুক্তিযোদ্ধার কাছে হেরে হ্যাটট্রিক হারের রেকর্ড গড়ে মতিঝিলের ক্লাবটি। প্রায় ৩০ বছরের ইতিহাসে দলের প্রথম টানা তিন ম্যাচ হারায় কোচ মানিক ক্ষোভ উগড়ে দেন মাঠের রেফারিদের বিপক্ষে। ক্ষুব্ধ এই কোচ এরপর মুখ খোলেন নিজ দলের কর্মকর্তাদের বিপক্ষে।

সাবেক এই ফুটবল তারকা বলেন,“ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটিকে ধ্বংস করে দেওয়ার জন্য ক্লাবের ভেতর ও বাইরের একটি মহল কাজ করছে। এখন প্রায়ই আমাদের বিপক্ষে বাজে রেফারিং হচ্ছে। আজকের ম্যাচেও রেফারি আমাদের একটি পেনাল্টি দেননি। স্ট্রাইকাররা বল নিয়ে প্রতিপক্ষের বিপদ সীমায় গেলে প্রায়শ অফসাইডের বাঁশি বাজানো হচ্ছে। ওই কুচক্রী মহলের আস্কারাতেই রেফারিরা এমনটা করছেন। মোহামেডানের ঘুরে দাঁড়ানোর বিপক্ষে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ”

মাঠের বাঁশিওয়ালাদের ভূমিকায় তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেন বলেন,“চট্টগ্রাম মোহামেডানের বিপক্ষে সাধারণ একটি ঘটনায় লালকার্ড পান দলের খেলোয়াড় এমেকা লাকি। এরকম ঘটনায় সাধারণত এক ম্যাচ নিষিদ্ধ থাকেন খেলোয়াড়। কিন্তু তাকে এক ম্যাচ নিষিদ্ধের পরিবর্তে দুই ম্যাচ নিষিদ্ধ করা হয়েছে এটা ষড়যন্ত্রেরই একটি নমুনা। ”

দলের কর্মকর্তাদের বিপক্ষে অভিযোগ এনে তিনি বলেন,“অভিভাবক ছাড়াই চলছে মোহামেডান। ক্লাবের ইতিহাসে এই প্রথম জাতীয় দলের কোনো খেলোয়াড় ছাড়াই আমাদের দল গড়া হয়েছে। আমাকে সাহস জোগানোর মতো কেউ নেই। ৪০ জন ক্লাব কর্মকর্তাদের মধ্যে একজন ছাড়া কেউই কাবে আসেন না। একটি গ্রুপ আমাদের অসহায়ত্বের সুযোগ নিচ্ছে। সমর্থকরা ছাড়া আমার পাশে আর কেউ নেই। এমনকি কাবের কোনো চিঠিও আসে না আমার নামে। ”

এ বিষয়ে মোহামেডানের ফুটবল কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও জাতীয় দলের সাবেক খেলোয়াড় ছাইদ হাসান কানন বাংলানিউজকে বলেন,“আমাদের বিষয়টি সবাই দেখেছেন। আমি কাউকেই দোষ দিতে চাইনা। তবে ক্লাবকে কেউ কেউ শেষ করে দিচ্ছেন। এবার মাঝারি মানের একটি দল গড়া হয়েছে। সে হিসেবে দলের পারফরমেন্সকে খারাপ বলার কোনো সুযোগ নেই। ”

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৫ ঘন্টা, জানুয়ারি ২৮, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa