ঢাকা, সোমবার, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

খেলা

পাকিস্তানকে উড়িয়ে ফাইনালে ভারত

আহসান হাবিব সম্রাট, কক্সবাজার থেকে | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭১৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২০, ২০১০
পাকিস্তানকে উড়িয়ে ফাইনালে ভারত

কক্সবাজার: পাকিস্তানকে গোলবন্যায় ভাসিয়ে সাফ মহিলা ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠেছে ভারত। সোমবার প্রথম সেমিফাইনালে ফরোয়ার্ড বালা দেবীর হ্যাটট্রিকে ৮-০ তে উড়িয়ে দেয় চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানকে।

কক্সবাজার জেলা স্টেডিয়ামে খেলার শুরু থেকেই পাকিস্তানকে কোণঠাসা করে ফেলে ভারত। এগিয়ে যেতে পারতো ম্যাচের পঞ্চম মিনিটেই। কিন্তু স্ট্রাইকার সাস্মিতা মালিকের শট প্রতিপক্ষের ক্রসবারে লেগে ফিরে আসে।

১৯ মিনিটে পাকিস্তানের জালে বল জড়িয়ে উৎসবের শুরুটা করেন বালা দেবী। অধিনায়ক তাবাবির মাইনাস থেকে সরাসরি শটে নিশানা ভেদ করেন। সাত মিনিট পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন গায়ত্রী মল্লিক। পরের দুটি গোল আসে হ্যাটট্রিক কন্যা বালার পা থেকে। ৩২ ও ৩৩ মিনিটে নিশানা ভেদ করেন তিনি। সেই সঙ্গে প্রতিযোগিতায় নিজের দ্বিতীয় হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন বালা।

বসে থাকেননি প্রতিযোগীতায় সর্বোচ্চ গোলদাতা সাস্মিতা মালিকও। ৩৪ মিনিটে দলের পঞ্চম গোলটি করেন তিনি। প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার আগেই গায়ত্রী ও মন্দাকিনীর গোলে ৭-০ তে এগিয়ে যায় ভারত।
 
দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে দুই সেরা স্ট্রাইকার সাস্মিতা ও বালা দেবীকে বিশ্রাম দেওয়া হয়। ফলে কিছুটা নি®প্রভ হয়ে পড়ে ফেভারিট একাদশ। তবে শেষ সময়ে একটি গোল পায়। ৭৯ মিনিটে পাকিস্তানের পরাজয়ের কফিনে শেষ পেরেক ঠোকেন মানপ্রিত কাউর।

অবশ্য এ ফলাফলে খুব একটা হতাশ নন পাকিস্তান অধিনায়ক সানা মাহমুদ। বলছিলেন,‘‘ভারত আমাদের থেকে অনেক এগিয়ে। আমরা নতুন একটা দল। সেমিফাইনালে খেলেছি এতেই আমরা সন্তুষ্ট। ”

সেরা একাদশ ছাড়াও ফাইনাল নিশ্চিত হওয়ায় খুশি ভারতের কোচ শহীদ জব্বার,‘‘ নিয়মিত পাঁচ খেলোয়াড়কে বিশ্রামে রেখেছিলাম। এরপরও বড় জয় এসেছে। জয় পেয়েছি এটাই বড়, কত ব্যবধানে জিতেছি সেটা মুখ্য নয়। ”

বাংলাদেশ সময়: ১৭০৮ ঘন্টা, ডিসেম্বর ২০, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa