ঢাকা, শনিবার, ১ কার্তিক ১৪২৮, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

খেলা

সংঘাত এড়াতে ক্লাবে দলবদল করেছি: বাদল

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ৭, ২০১০
সংঘাত এড়াতে ক্লাবে দলবদল করেছি: বাদল

ঢাকা: আবাহনী লিমিটেড খেলোয়াড় নিবন্ধন করতে সিসিডিএমে এলেও মোহামেডান স্পোর্টিং আসেনি। সাদাকালো শিবির কমিশনে খেলোয়াড়র নিবন্ধন করেছে ক্লাবে বসে।

এতে অবশ্য তামিম ইকবাল, সাকিব আল হাসান, ফয়সাল হোসেন ডিকেন্সদের আনুষ্ঠানিক পরিচয় করে দেওয়ার সুযোগ পেয়েছেন ক্লাবের ক্রিকেট কমিটির সভাপতি লুৎফর রহমান বাদল।

যদিও সংবাদ সম্মেলনে ভিন্ন কথা বলেছেন,“একটি বড় ক্লাবের সঙ্গে সংঘাত এড়ানোর জন্যই কাবে কমিশন দিয়ে খেলোয়াড় নিবন্ধন করালাম। ”

বড় ক্লাবটির নাম প্রকাশ করেননি বাদল। তবে উপস্থিত কারোই বোঝার বাকি থাকে না আবাহনীকেই ইঙ্গিত করেছেন মোহামেডান কর্মকর্তা। কিন্তু লুৎফর রহমান বাদলের এই উদ্যোগকে ভালো চোখে দেখছেন না ক্লাবের অন্য কর্মকর্তা এবং সমর্থকরা। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মোহামেডানের একজন ক্রিকেট কর্মকর্তা রোববার বাংলানিউজকে বলেন,“সভাপতি ক্ষমতা দেখালেন। সমর্থকরা চেয়েছিলেন বাদ্যবাজিয়ে স্টেডিয়ামে যাবে। ধুমধাম করে দলবদল হবে। এভাবে খেলোয়াড় নিবন্ধন করায় আমরা খুশি হতে পারিনি। ”

সমর্থকদের মন খারাপ হলেও তামিম, সাকিবরা বেশ মজা পেয়েছেন। ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ অলরাউন্ডার সাকিবের মুখেই শুনুন,“ভালো লাগছে ভালো দলে খেলতে পারছি। ভালো পারিশ্রমিক দিয়েছে। ক্লাব হিসেবেও আগেরটির চেয়ে ভালো। ”

আগের মৌসুমে আবাহনীর অধিনায়ক ছিলেন সাকিব। দারুণ নেতৃত্ব দিচ্ছিলেন। অবশ্য ফাইনালে গিয়ে গুলিয়ে ফেলেন। মোহামেডানের কাছে শিরোপা খোয়ায় আবাহনী। এনিয়ে মাঠের বাইরে সমর্থক এবং কাব কর্মকর্তাদের তোপের মুখে পড়তে হয় সাকিবকে। সেই তিক্ত অভিজ্ঞতাই আবাহনী থেকে দূরে নিয়ে গেছে বাঁহাতি অলরাউন্ডারকে।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সফল নায়ক সাকিব ঘরোয়া ক্রিকেটে নামের প্রতি খুব একটা সুবিচার করতে পারেননি আগের মৌসুমগুলোতে। এবার সেই গন্ডি থেকে বেরিয়ে আসতে চান ২৪ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার। বলেন,“ঘরোয়া ক্রিকেটে আমার রেকর্ড তেমন ভালো নয়। চেষ্টা করবো এবার ভালো খেলতে। মোহামেডানের খেলার পরিবেশ আছে। আশা করি সফল হতে পারবো। ”

সাকিব মোহামেডানে ফিরলেও তামিম ইকবাল আগের মৌসুমেই সাদাকালো শিবিরে নাম লিখিয়েছেন। তিন তারকা ক্রিকেটারের সঙ্গে শামসুর রহমান শুভ, নাজিমুদ্দিন চৌধুরী, শুভাশিস রায়, তারেক আজিজ, নূর হোসেন মান্না ও ফরিদ উদ্দিন মাসুদকে নিয়ে সেরা দল গড়েছে মোহামেডান।

সেতুলনায় আবাহনী কিছুটা পিছিয়ে। মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মাশরাফি বিন মুর্তজা, এনামুল হক বিজয়, মাশাল আয়্যুব, ফরহাদ হোসেন, আলাউদ্দিন বাবু, তাপস বৈশ্য, সাকলাইন সজিব, মাহবুব আলম রবীন, আবুল হাসান রাজ ও হান্নান সরকারকে নিয়ে বড় দল হিসেবে ভারসাম্য রেখেছে।

আবাহনী মোহামেডান ছাড়াও দ্বিতীয় দিন দলবদলে অংশ নেয় প্রাইম ধলেশ্বর।  

বাংলাদেশ সময়: ২১২৯ ঘন্টা, নভেম্বর ০৭, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa