bangla news

প্রতারণার অভিযোগে সিঙ্গাপুরে বাংলাদেশি আটক

1074 |
আপডেট: ২০১৫-০২-০১ ৪:৩০:০০ এএম
ছবি: প্রতীকী

ছবি: প্রতীকী

প্রতারণা করে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে ঋণ নেওয়ার অভিযোগে সম্প্রতি সিঙ্গাপুরে মোস্তাক আহমেদ (৫৪) নামের এক বাংলাদেশি নাগরিককে আটক করেছে পুলিশ। জানা গেছে, মোস্তাক দীর্ঘ আট বছর যাবত সিঙ্গাপুরের স্থায়ী বাসিন্দা (পি.আর) হিসেবে স্বপরিবারে বসবাস করে আসছিলেন।

সিঙ্গাপুর থেকে: প্রতারণা করে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে ঋণ নেওয়ার অভিযোগে সম্প্রতি সিঙ্গাপুরে মোস্তাক আহমেদ (৫৪) নামের এক বাংলাদেশি নাগরিককে আটক করেছে পুলিশ।

জানা গেছে, মোস্তাক দীর্ঘ আট বছর যাবত সিঙ্গাপুরের স্থায়ী বাসিন্দা (পি.আর) হিসেবে স্বপরিবারে বসবাস করে আসছিলেন।

সিঙ্গাপুরে যাওয়ার পর থেকে তিনি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অফিস সহকারী ও সুপারভাইজার হিসেবে কাজ করছিলেন। কিন্তু বয়স বেড়ে যাওয়ায় দুই বছর ধরে তিনি বেকার হয়ে পড়েছেন।

এরই মধ্যে তিনি কয়েকটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে প্রায় আট হাজার ডলার ঋণ গ্রহণ করেছিলেন।  প্রতিবার ঋণ নেওয়ার পর তিনি তার বাসা পরিবর্তন করতেন। ফলে প্রতিষ্ঠানগুলোর কর্মীরা ঋণ পরিশোধের তাগাদা দিতে আসলে নতুন ভাড়াটেদের সামনে বিব্রতকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হত। 

শেষ পর্যন্ত ফার্স্ট ক্রেডিট লিমিটেড নামের একটি প্রতিষ্ঠান থানায় অভিযোগ দিলে, পুলিশ তদন্ত করে জানতে পারে ঋণ ফাকি দেওয়ার উদ্দেশ্যেই তিনি প্রতিনিয়ত বাসা পরিবর্তন করতেন।

সিঙ্গাপুরে যে কোনো ব্যক্তি বাসা পরিবর্তন করার পর স্থানীয় থানায় তা লিপিবদ্ধ করাতে হয়, যেন বিভিন্ন প্রয়োজনে সরকারি বা যে কোনো সহযোগী প্রতিষ্ঠান তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারে।  কিন্তু মোস্তাক আহমেদ গত দুই বছরের মধ্যে নতুন কোনো বাসার ঠিকানা থানায় লিপিবদ্ধ না করালেও বেশ কয়েকবার বাসা পরিবর্তন করেন।

শেষ পর্যন্ত বুকিত বাতকের একটি বাসা থেকে তাকে আটক করে তার বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ আনা হয়। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তার সর্বোচ্চ এক বছরের জেল হতে পারে বলে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা জানান। 

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০১, ২০১৫

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2015-02-01 04:30:00