ঢাকা, মঙ্গলবার, ৫ মাঘ ১৪২৭, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ০৪ জমাদিউস সানি ১৪৪২

রাজনীতি

‘হেফাজতে ইসলামের ষড়যন্ত্র এখনই রুখে দিতে হবে’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০২০
‘হেফাজতে ইসলামের ষড়যন্ত্র এখনই রুখে দিতে হবে’ বাংলাদেশ যুব মৈত্রীর লোগো

ঢাকা: হেফাজতে ইসলামের ষড়যন্ত্র এখনই রুখে দিতে হবে বলে মন্তব্য করেছে বাংলাদেশ যুব মৈত্রী।

শনিবার (২৮ নভেম্বর) বাংলাদেশ যুব মৈত্রীর সভাপতি সাব্বাহ আলী খান কলিন্স ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মুতাসিম বিল্লাহ সানি এক যৌথ বিবৃতিতে এ মন্তব্য করেন।

বিবৃতিতে যুব মৈত্রীর পক্ষ থেকে গত বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) সকালে জামেয়া মাদানীয়া বারিধারা মাদ্রাসায় ওলামাদের এক সভায় হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব নূর হোসাইন কাসেমীর ভাস্কর্য নিয়ে ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্যের তীব্র ক্ষোভ, নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।

এতে বলা হয়, ‘নূর হোসাইন কাসেমী প্রাণীর ভাস্কর্য নির্মাণের সিদ্ধান্ত থেকে সরকারকে সরে আসতে বলেন, সরে না আসলে তীব্র আন্দোলনের হুমকিও দেন। কাসেমী কৌশলে প্রাণীর ভাস্কর্য করা যাবে না বলে আদতে ভাস্কর্যের বিরুদ্ধেই তাদের অবস্থান জোরালো করেছে। শুধু তাই নয়, তারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যও করা যাবে না বলে ফতোয়া জারি করেছে। প্রাণীর ভাস্কর্যের কথা বলে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণের বিরোধিতা করাই হেফাজতচক্রের মূল উদ্দেশ্য। ’

‘হেফাজতে ইসলাম এ ধরনের অপতৎপরতার মাধ্যমে মহান মুক্তিযুদ্ধের অসাম্প্রদায়িক চেতনা ভূলণ্ঠিত করার সুদূরপ্রসারী চক্রান্ত বাস্তবায়নের পুরনো খেলায় মেতে উঠেছে। প্রকৃত অর্থে তারা পাকিস্তানি শাসকচক্রের ন্যায় ধর্মকে আশ্রয় করে আবারও পাকিস্তানি ভাবাদর্শ প্রতিষ্ঠার ষড়যন্ত্র বাস্তবায়নে লিপ্ত। কাসেমীর হুমকি-ধামকি স্বাধীনতার স্বপক্ষের অসাম্প্রদায়িক-গণতান্ত্রিক চেতনার সাধারণ মানুষকেই কার্যত হুমকি প্রদান। যেকোনো দল ভাস্কর্য বসালে টেনে হিচড়ে ফেলে দেওয়া হবে বলে হুমকি দিয়েছেন হেফাজতের আমীর জুনায়েদ বাবুনগরী।

নেতারা আরও বলেন, ‘তাদের দুজনের বক্তব্য অত্যন্ত আপত্তিকর ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী। হেফাজতে ইসলাম সাম্প্রদায়িক উসকানিমূলক বক্তব্য দিয়ে দেশের মধ্যে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরির পায়তারা করছে। তারা কৌশলে ভাস্কর্যের বিরোধিতা করলেও, তাদের অবস্থান বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের বিরুদ্ধে। সাম্প্রদায়িক অপশক্তির যেকোনো ধরনের উসকানি, অপচেষ্টা ও ষড়যন্ত্র এখনই দেশের যুব সমাজ ও আপামর জনতাকে নিয়ে রুখে দিতে হবে। ’

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০২০
আরকেআর/এফএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad
Alexa