ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ আশ্বিন ১৪২৯, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

জাতীয়

কৃষক লীগের সভাপতির বিরুদ্ধে সরকারি গাছ কাটার অভিযোগ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০৪৪ ঘণ্টা, আগস্ট ১৩, ২০২২
কৃষক লীগের সভাপতির বিরুদ্ধে সরকারি গাছ কাটার অভিযোগ

বরগুনা: বরগুনার বেতাগী উপজেলার কৃষকলীগ সভাপতি সেলিম খানের বিরুদ্ধে বন বিভাগের অনুমতি ছাড়াই সড়কের পাশের মেহগনি গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।

শুক্রবার সরকারি গাছ কাটার খবর পেয়ে উপজেলা বন বিভাগের সহকারী কর্মকর্তা হুমায়ুন কবির শাহাজাদা গাছ কেটে রাখা গাছগুলো জব্দ করেন।

জানা গেছে, বন বিভাগের তত্ত্বাবধানে রাস্তার পাশে রোপণ করা গাছ কেটে ফেলার খবর পেয়ে শুক্রবার দুপুরে বেতাগী সদর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডে কেওড়াবুনিয়া গ্রামে যান বন বিভাগের কর্মকর্তারা। এ সময় উপজেলা বন বিভাগের কর্মকর্তা সহকারী ইনচার্জ হুমায়ুন কবির শাহাজাদা তার অফিসের লোকজনসহ গাছগুলো জব্দ করে অফিসে নিয়ে আসেন।

স্থানীয়রা জানান, বন বিভাগের লোকজন পৌঁছানোর আগেই কেটে রাখা গাছগুলোর এক অংশ স্থানীয় স্বমিলে সরিয়ে ফেলা হয়। এ খবর পেয়ে সেখান থেকেও বন বিভাগের লোকজন গাছ জব্দ করে অফিসে নিয়ে যান।

স্থানীয় বাসিন্দা আবুল কালাম বলেন, কৃষক লীগের সভাপতি সেলিম খানের সরকারি গাছ কাটা ঠিক হয়নি। এটা ক্ষমতার অপব্যবহার করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে সেলিম খান বাংলানিউজকে বলেন, আমার নিজের জমিতে রোপণ করা গাছ কেটেছি। বন কর্মকর্তারা এলে তাদের আমি সহযোগিতা করি। তারা দাবি করেছেন এই গাছগুলো তাদের এরিয়ার ভেতরে ছিল। তবে আমি অপরাধী না তাই পালাইনি। তারা যে ব্যবস্থা নেবেন সেটি আমি মেনে নেব।

বেতাগী উপজেলা সহকারী বন কর্মকর্তা হুমায়ুন কবির শাহজাদা বাংলানিউজকে বলেন, আমরা খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। গাছ কাটায় অভিযুক্ত সেলিম খানকে নিয়ে গাছ জব্দ করি। তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

বেতাগী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. সুহৃদ সালেহীন বলেন, ইতোমধ্যে বিষয়টি সম্পর্কে আমি জেনেছি। কাটা গাছগুলো জব্দ করা হয়েছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখে দোষীর বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১০৪৩ ঘণ্টা, আগস্ট ১৩, ২০২২
এফআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa