ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

লাইফস্টাইল

সারা কেন মাত্র দু’বছরেই সেরা! 

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭০৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৪, ২০২০
সারা কেন মাত্র দু’বছরেই সেরা!  শরীফুন নেসা

ফ্যাশনপ্রেমীরা সব সময়ই খোঁজ করেন নিত্য-নতুন কালেকশনের। বিশ্বের নামকরা ফ্যাশন ব্র্যান্ডগুলোর আপডেটও থাকে অনেকের কাছেই।

কেউ কেউ তো আবার দেশে শপিং করার পরিবর্তে থাইল্যান্ড বা ভারতে ছোটেন।  

কিন্তু সেই চেনা চেহারা বদলে গিয়েছে গত দু’বছরে। কারণ মাত্র দু’বছরেই ফ্যাশনে আন্তর্জাতিকমানের পোশাক যুক্ত হয়েছে দেশি ব্র্যান্ড ‘সারা’ তে। তরুণদের জন্য সাধ্যের মধ্যে সবটুকু ভালোলাগা ও স্টাইল ঠিক রেখে পোশাক তৈরি করে জনপ্রিয়তার শীর্ষে উঠে এসেছে প্রতিষ্ঠানটি।  

দেশের পোশাকশিল্পের নিজস্ব ব্র্যান্ড ‘সারা’ লাইফস্টাইল লিমিটেড। এটি রপ্তানিমুখী পোশাকশিল্পের সঙ্গে জড়িত স্নোটেক্স গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান।  
‘সারা’ লাইফস্টাইল ও স্নোটেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এসএম খালেদ ও পরিচালক শরীফুন নেসা।  

শরীফুন নেসা বলেন, গুণগত মানের পোশাক ক্রেতার হাতে পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে সারা লাইফস্টাইল। এখানে শিশু, নারী, পুরুষ সবার জন্য রয়েছে আকর্ষণীয় বাহারী সব পোশাক।  

সারা ২০১৮ সালের মে মাস থেকে যাত্রা শুরু করলেও স্নোটেক্স গ্রুপের পথচলা দীর্ঘ ২০ বছরের। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা শেষ করে স্বামীর ব্যবসায় যুক্ত হন শরীফুন নেসা। তাদের পোশাক তৈরির প্রতিষ্ঠান  স্নোটেক্স গ্রুপে বর্তমানে প্রায় ১৫ হাজার শ্রমিক কাজ করেন।  

শরীফুন নেসা বলেন, একটা সময় চিন্তা এলো, আমাদের প্রতিষ্ঠানের পোশাকগুলো প্রায় সব দেশের বাইরে চলে যায়। আর দেশী ফ্যাশনপ্রেমীরা বিদেশি ব্র্যান্ডের পোশাক ব্যবহার করেন। সবার কাছে দেশের তৈরি আন্তর্জাতিকমানের পোশাক পৌঁছে দিতেই সারা-র যাত্রা শুরু হয়।  

সারা প্রতিটি পোশাকের জন্য আরামদায়ক কাপড় ব্যবহার করা হয়। বিশেষভাবে দেখা হয়, যেন ত্বকের কোনো ক্ষতি না হয়। আর ডিজাইন সব সময়ই ইউনিক রাখা হয়, যিনি পোশাকটি ব্যবহার করবেন  তার লুক ও রুচি যেন সবার প্রশংসা পায় এটিও লক্ষ্য করা হয়।  

তিনি বলেন, সবার পছন্দ ও প্রয়োজন বিবেচনায় রেখে সারার প্রতিটি শোরুমে রয়েছে বিভিন্ন ঋতুর শার্ট, এথনিক কুর্তি, এক্সক্লুসিভ পার্টি টপস, শাড়ি, নিট টি শার্ট, লেগিংস, ডেনিম, লন, শ্রাগস, পালাজো, জিন্স, পোলো টি শার্ট, পাঞ্জাবি, কিডস আইটেম। এছাড়াও থাকছে জ্যাকেট এবং শীতকালীন পোশাকের বিশেষ সম্ভার।  

রুচিশীল-ফ্যাশনেবল পোশাকগুলোর দামও রাখা হয়েছে সবার সাধ্যের মধ্যে। ঢাকার মিরপুর-৬, বসুন্ধরা সিটির লেভেল ১, ব্লক এ এর ৪০ এবং ৫৪ নং শপ, মোহাম্মাদপুর ও উত্তরায় ‘সারা’র  শোরুম রয়েছে। আউটলেটের পাশাপাশি ‘সারা’ এর নিজস্ব ওয়েবসাইট (www.saralifestyle.com.bd), ফেসবুক পেজ (www.facebook.com/saralifestle.bd) এবং ইন্সটাগ্রাম (saralifestyle.bd) থেকে ক্রেতারা ঢাকার ভেতরে অর্ডার করে এই করোনাকালে হোম ডেলিভারি পেতে পারেন। এছাড়াও ঢাকার বাইরে কুরিয়ারের মাধ্যমেও আপনার  পছন্দের পণ্য ডেলিভারি পাবেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৭০৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৪, ২০২০
এসআইএস 
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa