ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯, ৩০ জুন ২০২২, ০০ জিলহজ ১৪৪৩

লাইফস্টাইল

সৌন্দর্যচর্চায় ৫টি প্রাকৃতিক উপাদান

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭০২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩, ২০১৭
সৌন্দর্যচর্চায় ৫টি প্রাকৃতিক উপাদান সংগৃহীত ছবি

ত্বকের সৌন্দর্যের জন্য আমরা কত কিনা করি। বাজারে হরেক রকম প্রসাধনী পাওয়া গেলেও সেগুলোর সঠিক কার্যকারিতা কিংবা ক্ষতিকারক দিক আমরা অনেকেই জানি না। অথচ আমাদের রান্নাঘরেই রয়েছে এমন কিছু প্রাকৃতিক উপাদান যা ত্বক ও চুলের জন্য দারুণ উপকারী। আসুন জেনে নিই এমন পাঁচটি প্রাকৃতিক উপাদান সম্পর্কে।

রসুন
ব্রণের প্রতিকারে রসুনের ব্যবহার সবচেয়ে ভালো। এর অ্যান্টিভাইরাল ব্রণের ব্যাকটেরিয়া মেরে ফেলতে সাহায্য করে।

রসুনের কোয়া ছাড়িয়ে পিষে রস বের করুন। এরপর সারারাত মুখে লাগিয়ে রাখুন আর দেখুন চমক।

নারিকেল তেল
নারিকেল তেল সৌন্দর্যচর্চায় বিশেষভাবে পরিচিত। প্রাকৃতিক হেয়ারপ্যাক হিসেবে সবসময়ই নারিকেল তেলের উপর ভরসা রাখতে পারেন। চুল ধোয়ার ১৫-২০ মিনিট আগে চুলে নারিকেল তেল ম্যাসাজ করুন। এতে আপনার চুল পুষ্টি পাবে ও চুলের উজ্জ্বলতা বাড়বে।  

মধু
আপনার ত্বক যদি শুষ্ক হয়, তাহলে মধু সব থেকে ভালো উপটান হিসেবে কাজ করতে পারে। ভালো ফল পেতে কাঁচা মধু পাতলা প্যাকের মতো করে মুখে ১৫-২০ মিনিট লাগিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

অ্যালোভেরা
ডার্ক সার্কেল সারিয়ে তুলতে অ্যালোভেরা একটি চমৎকার সমাধান। এটি ভিটামিন ‘ই’ এবং ভিটামিন ‘সি’ তে পরিপূর্ণ। রাতে অ্যালোভেরা জেল চোখের নিচের কালো দাগে লাগিয়ে রাখুন। ভালো ফল পেতে সপ্তাহে ২-৩ দিন ব্যবহার করতে পারেন।

হলুদ 
প্রদাহজনিত কারণে এই প্রাকৃতিক উপাদানটির ব্যবহার সুপরিচিত। অনেকে ত্বকের স্বাভাবিক রঙ ধরে রাখতে ও উজ্জ্বলতা বাড়াতে হলুদের প্যাক ব্যবহার করেন। সামান্য কাঁচা হলুদ, মধু ও দই মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন। ১০-১৫ মিনিট মুখে লাগিয়ে রেখে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৩, ২০১৭
এমএসএ/আরআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa