ঢাকা, রবিবার, ১ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আইন ও আদালত

পিরোজপুরে অস্ত্র মামলায় এক ব্যক্তির ১৭ বছরের জেল

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৪৬ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২১
পিরোজপুরে অস্ত্র মামলায় এক ব্যক্তির ১৭ বছরের জেল

পিরোজপুর: পিরোজপুরে অস্ত্র মামলায় মন্টু কবিরাজ (৪৩) নামে এক ব্যক্তিকে ১৭ বছরের কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত।

বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ এস এম নূরুল ইসলাম এ আদেশ দেন।

দণ্ডাদেশপ্রাপ্ত মন্টু কবিরাজ জেলার ভান্ডারিয়া উপজেলার পৌর শহরের বাসিন্দা। তিনি একজন ডাকাত সদস্য।  

জানা গেছে, সাত সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইনের ১৯ (এ) ধারায় করা মামলায় মন্টু কবিরাজের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত  হওয়ায় তার ১০ বছরের এবং অস্ত্র আইনের ১৯ (এফ) ধারায় সাত বছরের কারাদণ্ডসহ মোট ১৭ বছরের কারাদণ্ডের আদেশ দেন আদালত। মন্টু কবিরাজ বর্তমানে পলাতক।

মামলা ও আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালের ১৬ জুন ভান্ডারিয়া পৌর এলাকায় নিজ বাড়ি  থেকে   মন্টু কবিরাজকে আটক করা হয়। এসময় তার ঘরে তল্লাশি চালিয়ে একটি দেশীয় পাইপগান, তিন রাউন্ড গুলি ও একটি চাইনিজ কুড়াল উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় ভান্ডারিয়া থানার সেই সময়ের উপপরিদর্শক (এসআই) মো. আব্দুল হক বাদী হয়ে ২০১৫ সালের ১৭ জুন অস্ত্র আইনে মন্টু কবিরাজের বিরুদ্ধে স্থানীয় থানায় মামলা করেন। ওই বছরের ১৪ জুলাই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ভান্ডারিয়া থানা পুলিশের সেই সময়ের এসআই নূরুল আমিন আসামির বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন।

মামলায় রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন পিরোজপুর দায়রা ও জজ আদালতের অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর (এপিপি) জহিরুল ইসলাম।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২২, ২০২১
এসআই


 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa