bangla news

মোবাইল কোর্ট পরিচালনায় লজিস্টিক সাপোর্ট দিতে নির্দেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-০১ ৪:৩৫:৪৭ পিএম
হাইকোর্টের ফাইল ফটো

হাইকোর্টের ফাইল ফটো

ঢাকা: র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) মোবাইল কোর্টের কার্যক্রম পরিচালনার সুবিধার্থে প্রয়োজনীয় জনবল ও আনুষঙ্গিক (লজিস্টিক) সহায়তা নিশ্চিত করতে স্বরাষ্ট্র সচিবকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

চার মাস আগে দেওয়া এক সাজার আদেশ না দেওয়ায় আদালতের তলবে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলম হাজিরের পর রোববার (০১ ডিসেম্বর) বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার এম সাখাওয়াত হোসাইন খান।

মো. সারওয়ার আলমের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট মাসুদ হাসান চৌধুরী পরাগ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম, ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিত দেবনাথ ও অমিত তালুকদার।

চারমাস আগে দেওয়া সাজার আদেশের অনুলিপি সরবরাহ করতে না পরায় সারওয়ার আলম হাইকোর্টে ক্ষমা চেয়েছেন। আদালতে তিনি বলেছেন, ইতোমধ্যেই আদেশের কপি সরবরাহ করা হয়েছে। তবে জনবল ও প্রয়োজনীয় সরঞ্জামাদির সংকটের কারণে আদেশের কপি যথাসময়ে সরবরাহ করতে বিলম্ব হচ্ছে।

এদিকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের সাজার আদেশের অনুলিপি ৫ কার্যদিবসের মধ্যে আবেদনকারীর অনুকূলে সরবরাহ করার আদেশের মেয়াদ বাড়াতে আবেদন করেছেন অ্যাটর্নি জেনারেল। 

আদালত বলেছেন, আপনার বিষয়টি বিবেচনা করা হবে।

আদালত সারওয়ার আলমকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, আদেশের কপি দিতে ৩/৪ মাস দিতে দেরি হচ্ছে কেন? সমস্যা কোথায় সেটা বলুন। 

জবাবে সারওয়ার আলম বলেন, এভাবে একের পর এক অভিযান পরিচালনা করতে হচ্ছে। পর্যাপ্ত লজিস্টিক সাপোর্ট নেই। 

এ কথা শোনার পর আদালত আদেশ দেন। 

আইনজীবী ব্যারিস্টার সাখাওয়াত হোসাইন খান জানান, নারায়ণগঞ্জের সিদ্দিরগঞ্জের বটতলা খালপাড়ের তপু এন্টারপ্রাইজের ম্যানেজার মো. মিজান মিয়াকে মৎস্য ও পশু খাদ্য আইন ২০১০ এর অধীনে ১৮ জুলাই এক বছরের সাজা দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলম। এরপর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। 

‘২১ জুলাই নারায়ণগঞ্জ বারের আইনজীবী অঞ্জন দাসের মাধ্যমে জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে আপিলের জন্য আদেশের অনুলিপি চেয়ে আবেদন করা হয়। কিন্তু আদেশের কপি না পেয়ে তারা রিট করেন,’ যোগ করেন তিনি। 

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০১, ২০১৯
ইএস/এমএ 

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-12-01 16:35:47