ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ শ্রাবণ ১৪২৮, ২৭ জুলাই ২০২১, ১৬ জিলহজ ১৪৪২

আন্তর্জাতিক

গাধা রপ্তানি করে প্রচুর আয় করছে পাকিস্তান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৪৪ ঘণ্টা, জুন ১২, ২০২১
গাধা রপ্তানি করে প্রচুর আয় করছে পাকিস্তান

২০২০-২১ অর্থবছরে পাকিস্তানে গাধার সংখ্যা এক লাখের বেশি বেড়েছে। দেশটিতে গৃহপালিত এই প্রাণীর সংখ্যা এখন ৫৬ লাখ।

তবে ঘোড়া এবং খচ্চরের সংখ্যা বাড়েনি বললেই চলে।  

পাকিস্তানের ২০২০-২১ অর্থনৈতিক জরিপে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।  

জরিপ অনুযায়ী, মহিষ, ঘোড়া, ছাগল, ভেড়া এবং উটসহ খামারের অন্যান্য প্রাণীর সংখ্যাও বেড়েছে।  

গাধা রপ্তানি করে প্রচুর বৈদেশিক মুদ্রা আয় করছে পাকিস্তান। দেশটি গাধার সংখ্যার দিক থেকে বিশ্বে তৃতীয়। প্রথম স্থানে রয়েছে চীন। তারপরও পাকিস্তান থেকে প্রধান গাধা আমদানিকারক চীন।  

চীনে গাধার চামড়ার ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। কারণ গাধার চামড়া থেকে তৈরি জেলটিনের ঔষধি গুণ রয়েছে তাদের কাছে। এটি রক্তের কাজ বৃদ্ধি করতে ও প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তুলতে সাহায্য করে। চীনের প্রচুর সংখ্যক মানুষ মনে করেন গাধার চামড়া থেকে তৈরি ওষুধ সর্দি এবং বার্ধক্য রোধে বিশেষ কার্যকর। সূত্র: দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪৭ ঘণ্টা, জুন ১২, ২০২১
নিউজ ডেস্ক 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa