ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

তথ্যপ্রযুক্তি

আইনী বৈধতায় নেমেছে মাইক্রোসফট

ও সেলসফোর্স

সিজারাজ জাহান | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২১৮ ঘণ্টা, জুন ২৮, ২০১০

মাইক্রোসফট ও কাউড কমপিউটিং সেলসফোর্স এর মধ্যে আইনী বৈধতা নিয়ে লড়াই চলছে। সম্প্রতি সফটওয়্যার গুরু মাইক্রোসফট ও কাউট কমপিউটিং সেলসফোর্স প্রযুক্তিভিত্তিক সরকারি আইন লঙ্ঘন করায় যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে মামলা করেছে।



সরকার অনুমোদিত বিভিন্ন প্রযুক্তির আইন লঙ্ঘনে তারা একে অন্যকে দোষী করছে। মাইক্রোসফটের অভিযোগ সরকার অনুমোদিত ৯টি প্রযুক্তির বিধি লঙ্ঘন করেছে কাউড কমপিউটিং সেলসফোর্স। আর প্রমাণস্বরূপ যথাযথ বৈধ নথিকরণ আছে মাইক্রোসফটের। একইভাবে ৫টি প্রতিষ্ঠানের আইন ভঙ্গ করায় গত ২৪ জুন বৃহস্পতিবার সেলসফোর্স মাইক্রোসফটের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে। যার মধ্যে উইন্ডোজ লাইভ অনলাইন সেবা ও নতুন উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম সেভেন অন্তর্ভূক্ত। উল্লেখ্য, গত মে মাসে যুক্তরাষ্ট্রের প্রযুক্তি সংস্থা সেলসফোর্সের বিরুদ্ধে উক্ত অভিযোগ করে। সিলিকন ভ্যালির ইনডিয়ারল গ্রুপের বিশেষজ্ঞ রব ইনডিয়ারল জানান, সেলসফোর্স তাদের প্রতিষ্ঠানের ভারসাম্যতা রক্ষার চেষ্টা করছে।

মাইক্রোসফট এ মুহুর্তে কাউড কমপিউটিং এর বৈধতা নিয়ে প্রোগ্রামারদের জন্য নতুন ধারা তৈরির চেষ্টা করছে। কাউড কমপিউটিং এর ফলে প্রোগ্রামাররা কাউড সার্ভার থেকে সফটওয়্যার কিনে সরাসরি ব্যক্তিগত কমপিউটারে তা ব্যবহারের সুবিধা নিতে পারবে।
মাইক্রোসফট এ মুহুর্তে ইন্টারনেটে লাইভ সার্ভিসের জন্য আজুরি কাউড কমপিউটিং উন্মুক্ত করেছে।

মাইক্রোসফট এর কাউড কমপিউটিং এর জন্য বরাদ্দ সফটওয়্যারগুলোর মধ্যে আছে অফিস, আউটলুক, উইন্ডোজ। অন্যদিকে সান ফ্রান্সিসকোভিত্তিক সেলসফোর্স তাদের ব্যবসার ভাগ্যোন্নয়নের পরিবর্তনে পোস্টার প্রচারণা শুরু করছে।

বাংলাদেশ স্থানীয় সময় ১৫৩০ ঘণ্টা, জুন ২৮, ২০১০
এসজেড/এসএইচ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa