ঢাকা, রবিবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২২ মে ২০২২, ২০ শাওয়াল ১৪৪৩

ভারত

শিশুদের তাড়াতে গুলি, মন্ত্রীর ছেলেকে পিটুনি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৮০৭ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৪, ২০২২
শিশুদের তাড়াতে গুলি, মন্ত্রীর ছেলেকে পিটুনি ফাইল ফটো

ঢাকা: একটি বাগানে ক্রিকেট খেলছিল গ্রামের কয়েকটি শিশু। খবর পেয়ে নিজেদের বাগান থেকে ওই শিশুদের তাড়াতে শূন্যে গুলি চালান বিহারের পর্যটনমন্ত্রীর ছেলে।

এতে পদদলিত হয়ে এক শিশুসহ ছয় জন আহত হয়।

বিহারের পশ্চিম চম্পারণ জেলায় এ অভিযোগে রোববার (২৩ জানুয়ারি) ওই মন্ত্রীর ছেলেকে ধরে মারধর করেন গ্রামবাসীরা। মন্ত্রীর গাড়ি ভাঙচুরও করা হয়। যদিও গুলি চালানোর কথা অস্বীকার করেছেন বিহারের ওই বিজেপি মন্ত্রী। এ ঘটনায় সরব হয়েছেন ভারতের বিরোধী দলনেতারা। তাদের অভিযোগ, বিহারের আইনপ্রণেতারাই আইন ভঙ্গ করছেন।

পুরো ঘটনাটি নেট মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। তাতে দেখা যায়, ক্যামেরার সামনেই মন্ত্রীর ছেলেকে ধরে পেটাচ্ছেন অনেকে।

জানা যায়, হরদিয়া গ্রামে বিহারের পর্যটনমন্ত্রী নারায়ণ প্রসাদের খামারবাড়ির বাগানে ক্রিকেট খেলছিল কয়েকটি শিশু। খবর পেয়ে বন্দুক, পিস্তলসহ লোকজন নিয়ে সেখানে যান তার ছেলে বাবলু কুমার। এরপর শিশুদের সেখান থেকে তাড়াতে পিস্তল থেকে শূন্যে গুলি চালান বাবলু। গুলি চালানোর কারণে শিশুরা ভয় পেয়ে হুড়োহুড়িতে পড়ে যায়। এতে পদদলিত হয়ে আহত হয় এক শিশুসহ কয়েকজন গ্রামবাসী। এ ঘটনার সময় বেশ কয়েকজনকে মারধরও করেছেন বাবলু বলে অভিযোগ করেন গ্রামবাসীরা।  

খবর পেয়ে ছুটে এসে স্থানীয়রা বাবলুর আগ্নেয়াস্ত্র কেড়ে নিয়ে তাকে মারধর করেন। মন্ত্রীর নাম লেখা নম্বর প্লেট খুলে নিয়ে তার গাড়িও ভাঙচুর করে।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে গ্রামবাসীদের হাত থেকে বাবলুকে উদ্ধার করে পুলিশ। পশ্চিম চম্পারণ জেলার পুলিশ সুপার উপেন্দ্র বর্মা জানান, গ্রামবাসীর পাশাপাশি আহত হয়েছেন মন্ত্রীর ছেলেও। তার আগ্নেয়াস্ত্র বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করানো ছাড়া ঘটনাস্থলে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

এদিকে গুলি চালানোর অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দিয়েছেন মন্ত্রী নারায়ণ প্রসাদ। তার দাবি, গ্রামবাসী পরিবারের লোকজনদের মারধর করায় বন্দুক-পিস্তল নিয়ে সেখানে গিয়েছিল আমার ছেলে। তার বন্দুক-পিস্তলের লাইসেন্সও রয়েছে। আমার ছেলের ওপর পাথর দিয়ে হামলা করা হয়েছে। আমার গাড়িতেও ভাঙচুর চালিয়েছে গ্রামবাসী। গুলি চালানোর অভিযোগ ভিত্তিহীন। আমার বদনাম করার জন্য রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র করা হয়েছে।

এ ঘটনায় নীতীশ কুমার সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছে বিরোধীরা। রাষ্ট্রীয় জনতা দল (আরজেডি)-এর নেতা শক্তি সিংহ যাদবের দাবি, বিহারে আইনশৃঙ্খলা বলে কিছু নেই। এখানে আইনশৃঙ্খলা বলবৎ কে করবে? আইনপ্রণেতারাই তো নিয়মভঙ্গ করছেন। বাগানে ক্রিকেট খেলার জন্য বাচ্চাদের ওপর মন্ত্রীর ছেলের হামলা করার অধিকার আছে কি?

বাংলাদেশ সময়: ০৭৫৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৪, ২০২২
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa