ঢাকা, সোমবার, ১০ মাঘ ১৪২৮, ২৪ জানুয়ারি ২০২২, ২০ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

ফিচার

ইতিহাসে এই দিন

নাসিরউদ্দীন, রাজীব গান্ধীর প্রয়াণ

ফিচার ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৪১ ঘণ্টা, মে ২০, ২০১৭
নাসিরউদ্দীন, রাজীব গান্ধীর প্রয়াণ নাসিরউদ্দীন ও রাজীব গান্ধী

ঢাকা: ইতিহাস আজীবন কথা বলে। ইতিহাস মানুষকে ভাবায়, তাড়িত করে। প্রতিদিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা কালক্রমে রূপ নেয় ইতিহাসে। সেসব ঘটনাই ইতিহাসে স্থান পায়, যা কিছু ভালো, যা কিছু প্রথম, যা কিছু মানবসভ্যতার অভিশাপ-আশীর্বাদ।

তাই ইতিহাসের দিনপঞ্জি মানুষের কাছে সবসময় গুরুত্ব বহন করে। এই গুরুত্বের কথা মাথায় রেখে বাংলানিউজের পাঠকদের জন্য নিয়মিত আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিন’।

২১ মে, ২০১৭, রোববার। ০৭ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ। একনজরে দেখে নিন ইতিহাসের এই দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যু দিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনা

১৫০২- জোয়া দ্য নোভা সেন্ট হেলেনা দ্বীপ আবিষ্কার করেন।

১৮৭৭- দশম রুশ-তুরস্ক যুদ্ধ শুরু।

১৯০৪- ফিফা গঠিত।

১৯২৭- চার্লস লিন্ডবার্গ বিমানে চড়ে আটলান্টিক পাড়ি দিয়ে প্যারিসে পৌঁছেন।

১৯৩২- চলন্ত উড়োজাহাজে প্রথমবারের মতো ভূমি থেকে প্রচারিত চিত্র ধরা পড়ে।

১৯৭৪- যুক্তরাষ্ট্র-বাংলাদেশ সাহায্য চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

জন্ম

১৪৭১- চিত্রশিল্পী অ্যালবার্ট ডুপার।

১৬৮৮- কবি আলেকজান্ডার পোপ।

১৯২১- আন্দ্রে শাখারভ, সোভিয়েত ইউনিয়নের পরমাণু বিজ্ঞানী, ভিন্নামতাবলম্বী এবং মানবাধিকার কর্মী।

মৃত্যু

১৯১১- উইলিয়ামিনা ফ্লেমিং, স্কটল্যান্ডীয় জ্যোতির্বিদ।

১৯২৬- ফ্রিড্‌রিশ ক্লুগে, জার্মান ভাষাবিজ্ঞানী।

১৯৯১- রাজীব গান্ধী, ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও কংগ্রেস সভাপতি।

তিনি ভারতের সপ্তম প্রধানমন্ত্রী। ইন্দিরা নেহেরু ও ফিরোজ গান্ধীর বড় ছেলে। ১৯৮৪ সালের ৩১ অক্টোবর মায়ের মৃত্যুর দিনে মাত্র চল্লিশ বছর বয়সে তিনি দেশের কনিষ্ঠতম প্রধানমন্ত্রীরূপে কার্যভার গ্রহণ করেন। ১৯৮৯ সালের ২ ডিসেম্বর সাধারণ নির্বাচনে পরাজয়ের পর পদত্যাগ করার আগে পর্যন্ত তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন।

তিনি ১৯৯১ সালের ২১ মে দক্ষিণ ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যের শ্রীপেরামবুদুরে এক আত্মঘাতী বোমার বিস্ফোরণে নিহত হন। ভারতের ইতিহাসে এই ঘটনা রাজীব গান্ধী হত্যাকাণ্ড নামে পরিচিত। ওই বিস্ফোরণে রাজীব ছাড়াও আরও ১৪ জন নিহত হন।

১৯৯৪- মোহাম্মদ নাসিরউদ্দীন।

তিনি মুসলিম বাংলার সাময়িক পত্র, সাংবাদিকতা ও সাহিত্য আন্দোলনের পথিকৃৎ এবং বিশিষ্ট সম্পাদক। বাংলা ১২৯৫ সনের ৩ অগ্রহায়ণ বর্তমান চাঁদপুর জেলার পাইকারদী গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন।

১৯১৮ সালে তিনি কলকাতা থেকে সম্পূর্ণ নিজ উদ্যোগে ও সম্পাদনায় প্রকাশ করেন মাসিক সওগাত পত্রিকা। ১৯৩৩ সালে তিনি আরও প্রকাশ করেন বার্ষিক সওগাত। একই বছর স্থাপন করেন সওগাত কালার প্রিন্টিং প্রেস নামে একটি ছাপাখানা এবং সূচনা করেন সওগাত সাহিত্য মজলিশ। এছাড়া তিনি প্রকাশ করেন সাপ্তাহিক সওগাত (১৯৩৪), সচিত্র মহিলা সওগাত (১৯৩৭), শিশু সওগাত এবং ১৯৪৭ সালে প্রকাশ করেন সচিত্র সাপ্তাহিক বেগম পত্রিকা।

বাংলাদেশ সময়: ০০৪০ ঘণ্টা, মে ২১, ২০১৭
আইএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa