ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৩ জুন ২০২৪, ০৫ জিলহজ ১৪৪৫

পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য

ঘূর্ণিঝড় রিমাল: সুন্দরবনে মিলল ৩৯ মৃত হরিণ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯২৩ ঘণ্টা, মে ২৯, ২০২৪
ঘূর্ণিঝড় রিমাল: সুন্দরবনে মিলল ৩৯ মৃত হরিণ

বাগেরহাট: ঘূর্ণিঝড় রিমালের প্রভাবে সৃষ্ট ঝড় ও জলোচ্ছ্বাসে সুন্দরবনের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। মারা গেছে বন্যপ্রাণী।

ঝড় শেষে মঙ্গল ও বুধবার (২৮ ও ২৯ মে) দুদিনে মৃত অবস্থায় মোট ৩৯টি হরিণ ও একটি শূকরের উদ্ধার করেছে বন বিভাগ। এছাড়া আহত অবস্থায় ১৭টি হরিণকে উদ্ধার করে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

বন বিভাগের খুলনা অঞ্চলের বন সংরক্ষক (সিএফ) মিহির কুমার দো বলেন, ঝড়ের কবলে পড়ে সুন্দরবনের বেশকিছু বন্যপ্রাণীর ক্ষতি হয়েছে। বনের অভ্যন্তর থেকে মৃত অবস্থায় ৩৯টি হরিণ ও একটি শূকর উদ্ধার করা হয়েছে। এর মধ্যে সুন্দরবন পূর্ব বিভাগের শরণখোলা রেঞ্জের কটকা অভয়ারণ্য ও জামতলা এলাকা থেকে ভেসে আসা ২৪টি মৃত হরিণ উদ্ধার করা হয়। আর সুন্দরবন করমজল কুমির প্রজননকেন্দ্র এলাকার সামনের পশুর নদসহ বনের বিভিন্ন এলাকা থেকে মৃত আরও ১৪টি হরিণ উদ্ধার করা হয়। এছাড়া একটি মৃত শূকর উদ্ধার করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ঘূর্ণিঝড় রিমালের প্রভাবে দফায় দফায় উচ্চ জোয়ারে সুন্দরবনের বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হয়ে পড়ে। এই জোয়ারের উচ্চতা ছিল ১১-১২ ফুট। পানি দেখে বন্যপ্রাণীর ক্ষতির আশঙ্কা করছিলাম। মৃতদেহ পাওয়ায় বন বিভাগ উদ্বিগ্ন। মৃত হরিণগুলো কটকায় মাটিচাপা দেওয়া হয়েছে। আর জীবিত হরিণ বনে অবমুক্ত করা হয়েছে।

উচ্চ জোয়ারের পানি সুন্দরবনে গহীনে ঢুকে যাওয়ায় হরিণগুলো ভেসে যাওয়ার পর সাঁতরে কূলে উঠতে না পেরে মারা গেছে বলে ধারণা বন বিভাগের। আরও অনেক মৃতদেহ ভেসে গেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে উদ্বিগ্ন বন বিভাগের কর্মকর্তারা।

** ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতবিক্ষত সুন্দরবন, মিলল ২৬ মৃত হরিণ

বাংলাদেশ সময়: ১৯২০ ঘণ্টা, মে ২৯, ২০২৪
এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।