ঢাকা, শুক্রবার, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ শাবান ১৪৪৫

বিনোদন

একাডেমিক সফলতায় উচ্ছ্বসিত মিতু

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩১ ঘণ্টা, মার্চ ৩১, ২০২৩
একাডেমিক সফলতায় উচ্ছ্বসিত মিতু কানিজ খন্দকার মিতু

এই সময়ের লোকসংগীত শিল্পী কানিজ খন্দকার মিতু। কোক স্টুডিও বাংলায় বাউল সাধক ফকির লালন শাহ’র ‘সব লোকে কয়’ গাওয়ার মাধ্যমে দর্শকপ্রিয়তা পান।

তার বর্তমান ব্যস্ততা গান নিয়েই। সংগীতের ক্যারিয়ারের পাশাপাশি পড়াশোনায়ও বেশ মনোযোগী এই তরুণ তুর্কী।

তার একাডেমিক সফলতা অবাক করার মতো। জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সংগীত বিভাগ থেকে স্নাতক সম্পন্ন করেছেন মিতু। একই বিশ্ববিদ্যালয়ে লোকগান বিভাগে স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করলেন তিনি।  

সম্প্রতি বিশ্ববিদ্যালয়ের লোকগান বিভাগে স্নাতকোত্তর পর্বের রেজাল্ট প্রকাশ হয়েছে। সেখান থেকে জানা যায়, লোকগান বিভাগে প্রথম স্থান অধিকার করেছেন মিতু। তার সিজিপিএ ৩.৯৫।  

বিষয়টি নিয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত মিতু। অনুভূতি প্রকাশ করে তিনি বলেন, প্রথমেই এই সফলতার জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি মহান আল্লাহর প্রতি। কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি আমার পিতা-মাতাসহ পরিবার ও আমার সংগীত বিভাগের শ্রদ্ধেয় শিক্ষাগুরুগণের প্রতি। এ পর্যায়ে এসে আলাদা করে কৃতজ্ঞ থাকতে হয় আমার ধর্মবাবা গোলাম রব্বানী রতনের কাছে। আমার শিক্ষাগুরু, আমার পথ প্রদর্শক, যিনি আমার মাথার ওপর বটবৃক্ষের ছায়া হয়ে সবসময় ছিলেন এবং আছেন।  

মিতু আরও বলেন, একাডেমিক পড়াশোনা শেষ হলো। এখন সবার দোয়া ও ভালবাসা নিয়ে গানটাকে আঁকড়ে ধরে এগিয়ে যেতে চাই।

সংগীত নিয়ে ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা জানিয়ে মিতু বলেন, সংগীত রিলেটেড ভালো একটা চাকরি করতে চাই এবং সেই সেক্টরে যেন সবরকম গান নিয়ে কাজ করতে পারি। যেসব গান বিলুপ্ত হয়ে গেছে বা বিলুপ্তির পথে, সেগুলো নিয়ে আমি দীর্ঘ সময় ধরে গবেষণা করতে চাই যাতে আমার প্রজন্ম আমার সহপাঠী বা আমার ছোট ভাই-বোন এগুলো দেখে উৎসাহিত হয়।  

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩১ ঘণ্টা, মার্চ ৩১, ২০২৩
এনএটি 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।