ঢাকা, রবিবার, ৯ মাঘ ১৪২৮, ২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১৯ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

শিক্ষা

ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং নিয়ে পড়তে চাইলে

মাহিদুল ইসলাম মাহি | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৫৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৯, ২০২১
ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং নিয়ে পড়তে চাইলে প্রতীকী ছবি

বর্তমান সময়ের চাহিদা মাথায় রেখে বৈজ্ঞানিক উপায়ে বিবিধ যন্ত্রকৌশল ব্যবহারের মাধ্যমে ভেজালমুক্ত সুষম খাদ্য উৎপাদন এবং বাজারজাতকরণ প্রক্রিয়া বিভিন্ন খাদ্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর সামনে একটি বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে।  

ল্যাবরেটরি প্রতিস্থাপনের মাধ্যমে খাদ্যের গুণগতমান পরীক্ষা করে বাজারজাত করার জন্য দেশে বহু প্রতিষ্ঠান কাজ করলেও দক্ষ জনবলের অভাব রয়েছে।

 

অপার সম্ভাবনার কথা মাথায় রেখে প্রাতিষ্ঠানিক, তত্ত্বীয় ও কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে অনেকেই খাদ্য প্রকৌশলী হিসেবে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে নিজের কর্মক্ষেত্র গড়েছেন।  

এনপিআই ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশে খাদ্য প্রকৌশল বিভাগটি চালু হয় ২০১৭ সালের উইন্টার সেমিস্টার থেকে। তত্ত্বীয় শিক্ষার পাশাপাশি ব্যবহারিক শিক্ষার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা হাতে-কলমে খাদ্য উৎপাদন, গুণগত মান এবং বাজারজাতকরণের কৌশল আয়ত্ত করছেন বিশ্ববিদ্যালয়টিতে।  

ইউনিভার্সিটিতে খাদ্য প্রকৌশল বিভাগটির প্রধান লক্ষ্য হচ্ছে শিক্ষার্থীদের খাদ্য প্রকৌশল, খাদ্য নিয়ন্ত্রণ, কেমিস্ট্রি, ফুড মাইক্রোবায়োলজি, ফুড প্রিজারভেশন, ফুড প্যাকেজিংসহ নানা বিষয়ে দক্ষ ও অভিজ্ঞ করে গড়ে তোলা। এনপিআই ইউনিভার্সিটিতে চার বছর মেয়াদি ১৫৩ ক্রেডিটের বিএসসি ইন ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে থাকছে, ইনট্রোডাকশন টু ফুড সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি, হিউম্যান নিউট্রিশন, ফুড সায়েন্স, বেসিক কেমিস্ট্রি অ্যান্ড প্র্যাকটিক্যাল, ফুড মাইক্রোবায়োলজি, ফুড সেফটি অ্যান্ড হাইজিন, কোয়ালিটি কন্ট্রোল অব ফুড, এনভায়রনমেন্টাল ফুড ইঞ্জিনারিংসহ মোট ৪৯টি বিষয়। এনপিআই  ইউনিভার্সিটি ডিপার্টমেন্ট অব ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে প্রতি বছর দুটি সেমিস্টারে ভর্তি নেওয়া হয়।  

এনপিআই ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশের ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান শামসুর রহমান খান বলেন, মানিকগঞ্জের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় এনপিআই ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ডিপ্লোমা প্রকৌশলী ও চাকরিজীবীদের জন্য সান্ধ্যকালীন ক্লাসের ব্যবস্থা রয়েছে। এইচএসসি এবং ডিপ্লোমা পরীক্ষার ফলাফলের ওপর ভিত্তি করে ১০ শতাংশ থেকে ১০০ শতাংশ টিউশন ফি মওকুফ করে থাকি। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের ফুড ইঞ্জিনারিং বিভাগের বেশিরভাগ শিক্ষার্থী কর্মক্ষেত্রে ভালো করছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার এফএমএ সালাম বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে খুবই অল্প খরচে আমরা মানসম্পন্ন উচ্চ শিক্ষা দিচ্ছি। আমাদের প্রধান ক্যাম্পাস মানিকগঞ্জে। তাই ঢাকা থেকে মানিকগঞ্জ ক্যাম্পাসে ছাত্রছাত্রীদের ক্লাস করার জন্য ক্যাম্পাস বাসের সুবিধা দিচ্ছি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী নির্মল শিকদার বলেন, আমাদের প্রধান ক্যাম্পাস মানিকগঞ্জে হলেও দ্বিতীয় ক্যাম্পাস সাভারের হেমায়েতপুরের সন্নিকটে সিংগাইরের বাস্তা এলাকায় শিগগিরই চালু হতে যাচ্ছে। বাস্তা ক্যাম্পাসে ফুড ইঞ্জিনারিং বিভাগের শিক্ষার্থীরা ক্লাস করবেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ফুড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ফরমুজুল হক বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে খুব কম করচে আমরা মানসম্মত শিক্ষা দিচ্ছি।  আমাদের বেশিরভাগ শিক্ষার্থীরা চাকরিজীবী।

বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক ড. মোহাম্মদ ফারুক হোসেন বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা কর্মক্ষেত্রে অনেক ভালো করেছে। করোনা মহামারি ও মুজিববর্ষ উপলক্ষে অনেক কম খরচে শিক্ষার্থীরা মানসম্মত শিক্ষা গ্রহণ করছে।

লেখক: প্রশাসনিক কর্মকর্তা, এনপিআই ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ 

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৯, ২০২১
জেএইচটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa