ঢাকা, রবিবার, ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৪ আগস্ট ২০২২, ১৫ মহররম ১৪৪৪

বইমেলা

বইমেলায় তরুণ লেখকদের ঘিরে পাঠকদের আগ্রহ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪৫ ঘণ্টা, মার্চ ১০, ২০২২
বইমেলায় তরুণ লেখকদের ঘিরে পাঠকদের আগ্রহ

ঢাকা: নতুন লেখকের বই হুট করে কেনা যায় না। তাই নতুন যেসব লেখকদের যে বইগুলো নিয়ে আলোচনা হয়, সেগুলোর রিভিউ দেখে তারপর নতুন লেখকের বই কেনেন বইপ্রেমী শারমিন।

বৃহস্পতিবার (১০ মার্চ) বিকেলে নতুন এবং তরুণ লেখকদের বই নিয়ে কথা হলে এমনটাই বলছিলেন তিনি। বইমেলা ঘুরে দেখা গেছে, আরও অনেক পাঠকেরই মত একই রকম।

বইমেলায় লেখকদের ঘিরে পাঠকদের জটলা থাকবে, অটোগ্রাফ নেওয়ার জন্য দীর্ঘ লাইন থাকবে, প্রিয় লেখককে কাছে থেকে দেখার উন্মাদনা ছাড়া যেন একুশে বইমেলা কল্পনা করা যায় না। তবে হুমায়ুন আহমেদ মৃত্যুর পরে দীর্ঘ সময় মেলার এই চিরচেনা চিত্র নতুন করে দৃশ্যপট বদলাতে শুরু করেছে। আর মেলা শুরুর পরে থেকে তরুণ লেখকদের প্রকাশিত বই ইতোমধ্যেই কয়েক সংস্করণ শেষও হয়েছে।

তরুণ লেখকদের নতুন প্রকাশিত বইয়ের জন্য অপেক্ষায় থাকেন পাঠকেরা, প্রকাশনা সংস্থাগুলোর থাকে আলাদা প্রস্তুতি। এমন একজন লেখক সাদাত হোসাইন। এবার তার লেখা তিনটি নতুন বই পাঠকদের মধ্যে উন্মাদনা সৃষ্টি করেছে। এর মধ্যে অন্যধারা প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত 'তোমাকে দেখার অসুখ' ও 'ইতি স্মৃতি গন্ধা' যথাক্রমে ষষ্ঠ ও তৃতীয় সংস্করণ শেষের পথে। প্রকাশনা সংস্থাটির বেস্ট সেলার বইয়ের তালিকাতেও রয়েছে সাদাত হোসাইন। এছাড়া অন্য প্রকাশ থেকে প্রকাশিত 'প্রিয়তম অসুখ সে' বইটিও এই প্রকাশনীর বেস্ট সেলার তালিকার মধ্যে আছে।

জ্ঞান কোষে পাওয়া যাচ্ছে কিংকর আহসানের ‘নীল ডুমুর’ বইটি। এই স্টল ও প্রকাশনীর বেস্ট সেলার তালিকায় রয়েছে বইটি। ইতোমধ্যেই চতুর্থ সংস্করণ শেষের পথে বইটির।

জনপ্রিয় গীতিকবি ও ঔপন্যাসিক লুৎফর হাসানের বিগত কয়েক বছরের প্রকাশিত উপন্যাসগুলো নিয়ে কিংবদন্তি প্রকাশনী থেকে এবার এসেছে এক মলাটে ‘নির্বাচিত উপন্যাস’ এবং নতুন ২১ টি গল্প নিয়ে ‘জোনাকীর নিসস্ব অন্ধকার’ নামে একটি বই। অন্য প্রকাশের স্টলে এই বইগুলো কিনতেও ভীড় দেখা গেছে পাঠকদের।

নতুন লেখকদের জয়গান গাইতে শোনা গেলো প্রকাশকদেরও। অন্য প্রকাশের পক্ষে পরিচালক সিরাজুল কবির চৌধুরী বলেন, তরুণ এই লেখকেরা মেলার হারানো উন্মাদনা ফিরিয়ে এনেছেন। এসব লেখক হচ্ছে প্রকাশকদের বাজির ঘোড়া।

এদিকে বৃহস্পতিবার বইমেলায় নতুন বই এসেছে ৫৯ টি। উল্লেখযোগ্য বইগুলোর মধ্যে নবান্ন প্রকাশনী প্রকাশ করেছে মুহম্মদ নূরুল হুদার কাব্যগ্রন্থ ‘কুসুমমৌসুম’, ড. নূরুন নবীর মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক ‘মুক্তিযুদ্ধে ভারত’, শিহাব সরকারের আত্মজৈবনিক গ্রন্থ ‘দিনগুলি যায় না তবু না ফুরায়’, সেলিনা হোসেনের প্রবন্ধ ‘এক জীবনে বাংলা একাডেমি’, অন্যধারা প্রকাশ করেছে সাইমন জাকারিয়ার ফোকলোর ‘বাংলাদেশের লোকশিল্পী তালিকা’, নালন্দা প্রকাশ করেছে সুধাংশু শেখর বিশ্বাসের ভ্রমণগ্রন্থ ‘সিঙ্গাপুরের সিংহ’, ঐতিহ্য প্রকাশ করেছে সৈয়দ শামসুল হকের ভাষা আন্দোলন বিষয়ক ‘বাহান্নের বিজয়গাথা’, জয়তী প্রকাশ করেছে ইকবাল খন্দকারের কিশোর থ্রিলার ‘টার্গেট কিলার’, একাত্তর প্রকাশনী প্রকাশ করেছে ড. আব্দুস সাত্তারের স্মৃতিচারণমূলক গ্রন্থ ‘আমেরিকার শিক্ষা’, পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স লি. প্রকাশ করেছে ফাল্গুনী তানিয়ার মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক প্রবন্ধ ‘বাংলাদেশের নারীযোদ্ধা: বঙ্গবন্ধুর অবদান’।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৪ ঘণ্টা, মার্চ ১০, ২০২২
এইচএমএস/এনএইচআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa