ঢাকা, শনিবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৯, ২৫ জুন ২০২২, ২৫ জিলকদ ১৪৪৩

এভিয়াট্যুর

শাহজালালে রেডলাইন কর্তার হাতে নারী নিরাপত্তাকর্মী লাঞ্ছিত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৬
শাহজালালে রেডলাইন কর্তার হাতে নারী নিরাপত্তাকর্মী লাঞ্ছিত

ঢাকা: ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে রেডলাইনের এক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সিভিল এভিয়েশনের এক নারী নিরাপত্তাকর্মীকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে।  

শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২টায় বিমানবন্দরের ৪ নম্বর বোর্ডিং ব্রিজ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এতে সিভিল এভিয়েশনের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

বিমানবন্দর সূত্র জানায়, ওই নারী নিরাপত্তা অপারেটর ৪ নম্বর বোর্ডিং ব্রিজের কাছে ওয়াশরুমে গেলে রেডলাইনের স্টাফ ম্যাথিউ কুপার এসে নিরাপত্তা পাস চেকের নামে লাঞ্ছিত করেন।  

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নারী কর্মী তার নিরাপত্তা পাস দিতে না চাইলে রেডলাইনের ওই স্টাফ তাকে টেনে-হেঁচড়ে মাটিতে ফেলে দেন। ওই নারী কর্মী তার পাসটি গায়ের জামার মধ্যে ঢুকিয়ে ফেলেও রক্ষা পাননি। কুপার তার জামার ভেতর হাত দিয়ে পাস কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা চালান। এতে ব্যর্থ হয়ে তিনি ওই নারী কর্মীর নিরাপত্তা পাসের ছবি তুলে নেন। এ ঘটনায় বিমানবন্দরজুড়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয়। ক্ষুব্ধ কর্মীরা এর বিচারের দাবিতে কিছু সময় কাজও বন্ধ রাখেন।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে শাহজালাল বিমানবন্দরেরর পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন জাকির হাসান বলেন, শুনেছি নিরাপত্তা পাস নিয়ে একটা কিছু ঘটে গেছে। এ জন্য রোববার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯টায় দু’পক্ষকেই ডাকা হয়েছে। ঘটনার কতটুকু কী ঘটেছে - তাদের কাছ থেকেই শোনার পর যদি মনে হয় এটা অন্যায় তাহলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে রেডলাইন যে কারোর পাস দেখতে পারে।  

তবে কী ঘটেছে সেটা সিসিটিভি ফুটেজ দেখলেই স্পষ্ট হবে জানিয়ে তিনি বলেন, তদন্ত না করে কিছুই বলা যাবে না।

এ বিষয়ে সিভিল এভিয়েশনের একজন প্রভাবশালী কর্মকর্তা বলেন, রেডলাইন বিমানবন্দরে কর্মরত যে কারো নিরাপত্তা পাসের বৈধতা আছে কিনা তা দেখতে পারে। কিন্তু এ অযুহাতে সিভিল এভিয়েশনের কোনো নিরাপত্তাকর্মীর পাস সিজ করতে পারে না। এটা এখতিয়ারবহির্ভূত।  

জানা গেছে, এর আগেও হ্যাঙ্গার গেটে একজন শীর্ষ নিরাপত্তা কর্মকর্তাকে আটকে দেন রেডলাইনের ওই সদস্য।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৪ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৬
এইচএ/জেডএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa