ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩ কার্তিক ১৪২৮, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

শিল্প-সাহিত্য

বাতিঘরের নতুন বই নিয়ে আড্ডা

শিল্প-সাহিত্য ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩১ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২১
বাতিঘরের নতুন বই নিয়ে আড্ডা

প্রকাশনা সংস্থা বাতিঘরের নতুন বই শিমিন মুশশারাত অনূদিত ‘আমাদের সবার নারীবাদী হওয়া উচিত এবং একটি নারীবাদী ঘোষণাপত্র’। নারীবাদ বিষয়ে নাইজেরিয়ান লেখক চিমামান্দা এনগোজি আদিচির লেখা ‘আমাদের সবার নারীবাদী হওয়া উচিত’ এবং ‘প্রিয় ইজাওয়েলে: পনেরো পরামর্শে একটি নারীবাদী ঘোষণাপত্র’ বই দুটো এক মলাটে প্রকাশ করেছে বাতিঘর।

প্রচ্ছদ করেছেন তৃত তথাগত।

বইটির প্রকাশনা উপলক্ষে ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১ বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টায় বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র ভবনের অষ্টমতলায় ঢাকা বাতিঘরে ‘নতুন বই ও চা-সিঙারা’ নামে আড্ডায় মিলিত হন শুভানুধ্যায়ীরা।  

আলোচনায় লেখক অনুবাদক জাভেদ হুসেন বই দুটোর অনুবাদের প্রশংসা করে বলেন, ‘নারীবাদ বিষয়ে আদিচির চিন্তা শিমিন মুশশারাত বুঝতে পেরেছেন বলেই তার অনুবাদ সাবলীল হয়েছে। যেকোনো বয়সের পাঠকই এই বই পড়ে নারীবাদ সম্পর্কে মৌলিক ও স্বচ্ছ একটা ধারণা লাভ করবেন। ’

‘নারীবাদ কী’—প্রশ্নটির উত্তর আছে ‘আমাদের সবার নারীবাদী হওয়া উচিত’ রচনাটিতে। আদিচি নিজের জীবনের অভিজ্ঞতার আলোকে জীবনের সূচনাকাল থেকে নারীর প্রতি বৈষম্যের বিষয়গুলো বর্ণনা করেন। ব্যাখ্যা করেন দৈনন্দিন ভাষার ব্যবহার থেকে শুরু করে বহুযুগ ধরে চলে আসা সংস্কার-সংস্কৃতি কত সূক্ষ্মভাবে নারী-পুরুষের বিভেদকে জিইয়ে রাখে। তার বিবেচনায় পুরুষতন্ত্রের বিস্তার শুধু নারী নয়, পুরুষের জন্যও গভীর ভোগান্তির কারণ হয়ে ওঠে। এই চক্রের বাইরে এসে গোড়া থেকেই সমান অধিকার ও মর্যাদার চেতনা নিয়ে একটি কন্যাশিশুকে বড় করার নির্দেশনা আছে আদিচির ঘোষণাপত্রে। অন্যদিকে সবারই কেন নারীবাদী হওয়া উচিত এ বিষয়ে আদিচির অভিজ্ঞতার বয়ান, নানা উদাহরণ আর ব্যাখ্যা সহজ, সরস কিন্তু তাৎপরযপূর্ণ।

বাংলাদেশ সময়: ১৭২০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০২১
নিউজ ডেস্ক 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa