ঢাকা, শনিবার, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ১২ জুন ২০২১, ০১ জিলকদ ১৪৪২

স্বাস্থ্য

চুয়াডাঙ্গায় একদিনে ৪৬ শতাংশ করোনা আক্রান্ত

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০২৫৭ ঘণ্টা, জুন ১০, ২০২১
চুয়াডাঙ্গায় একদিনে ৪৬ শতাংশ করোনা আক্রান্ত ...

চুয়াডাঙ্গা: শুধু সীমান্তবর্তী এলাকাগুলো নয়; এবার জেলা শহরেও উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। সীমান্তবর্তী এলাকার সঙ্গে সঙ্গে শহরের অলি গলিতে ছড়িয়ে পড়ছে সংক্রমণ।

 

একদিনে চুয়াডাঙ্গা জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৩৭ জন। ৮০ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৩৭ জনের করোনা শনাক্তের হার দাঁড়িয়েছে ৪৬ দশমিক ২৫ শতাংশে। এ পর্যন্ত জেলায় ১০ হাজার ৭৩০ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এর মধ্যে ফলাফল পাওয়া গেছে ১০ হাজার ৩৮০ জনের। সবশেষ করোনা প্রতিবেদনে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।  

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্য মতে, বুধবার চুয়াডাঙ্গায় ৮০ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ৩৭ জনের শরীরে করোনার অস্তিত্ব পাওয়া যায়। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্ত হলেন ২ হাজার ১৫৪ জন। এর মধ্যে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলায় ১৭ জন, দামুড়হদা উপজেলায় ১৩ জন, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ৪ জন ও জীবননগর উপজেলায় ৩ জন আক্রান্ত হয়েছেন। সদর উপজেলার মধ্যে রয়েছেন শহরের রেলপাড়ার ৪ জন, সিএন্ডবি পাড়ায় ৩ জন, পলাশ পাড়ার ১ জন, কোর্টপাড়ার ১ জন এছাড়া দৌলতদিয়ার ৫ জন, মনিরামপুরে ১ জন, সাতগাড়ীতে ১ জন, শঙ্করচন্দ্রতে ১ জন, দশমাইলে ১ জন। দামুড়হুদা উপজেলার মধ্যে রয়েছেন কুতুবপুরে ২ জন, ধন্যঘরার ২ জন, চিৎলায় ১ জন, বিষ্ণুপুরে ১ জন, মুক্তারপুরে ১ জন, হাতিভাঙ্গায় ১ জন, দলকা লক্ষীপুরে ১ জন, নতুন বাস্তপুরে ১ জন, হাতিভাঙ্গায় ১ জন, দর্শনায় ১ জন ও দামুড়হুদা উপজেলায় ১ জন। একইসঙ্গে আলমডাঙ্গা উপজেলায় রয়েছে ৪ জন ও জীববনগর উপজেলায় নতুন আক্রান্ত হয়েছেন ৩ জন। বর্তমানে জেলায় সক্রিয় রোগী রয়েছে ২৪১ জন। এর মধ্যে বাসায় আইসোলেশনে রয়েছে ২১৫ জন, হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে ২৩ জন এবং বাকি ৩ জনকে রেফার্ড করা হয়েছে।  

এছাড়া জেলায় মোট আক্রান্তের মধ্যে সদর উপজেলায় রয়েছে ১ হাজার ৭৯ জন, দামুড়হুদা উপজেলায় ৪৬৩ জন, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ৩৭৮ জন ও জীবননগর উপজেলার ২৩৪ জন।  

২৪ ঘণ্টায় নতুন কেউ সুস্থ হয়নি। জেলায় এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৮৪৩ জন। জেলায় এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৭০ জন। যার মধ্যে জেলাতেই মৃত্যুবরণ করেছেন ৬৪ জন।

চুয়াডাঙ্গার সিভিল সার্জন ডা. এএসএম মারুফ হাসান জানান, গত কয়েকদিন ধরেই চুয়াডাঙ্গার সীমান্ত এলাকায় সংক্রমণ বাড়ছে। সেই সঙ্গে নতুন করে জেলা শহরেও শনাক্ত বাড়ছে। সবশেষ বুধবার করোনা প্রতিবেদনে একদিনে ৪৬ দশমিক ২৫ শতাংশ শনাক্ত হয়েছে।  

বাংলাদেশ সময়: ০২৫৫ ঘণ্টা, জুন ১০, ২০২১
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa