ঢাকা, বুধবার, ১২ কার্তিক ১৪২৭, ২৮ অক্টোবর ২০২০, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

স্বাস্থ্য

চুয়াডাঙার সেই সাত্তারের জামিনাদেশ প্রত্যাহার

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২০৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২১, ২০২০

ঢাকা: চুয়াডাঙার আলমডাঙ্গা উপজেলার কায়েতপাড়া গ্রামের নিজাম উদ্দিনের ছেলে মো. আব্দুস সাত্তারের কাছ থেকে পুলিশ এক রাউন্ড গুলিসহ ওয়ান শুটার গান উদ্ধার করে। এ ঘটনায় করা মামলায় বিচারিক আদালত তাকে দু’টি ধারায় ১৭ বছরের সাজা দেন।

কিন্তু নিম্ন আদালতের ওই রায় বদল করে সেখানে অস্ত্রের পরিবর্তে ‘চায়নিজ কুড়াল’ উদ্ধারের বিষয়টি উল্লেখ করে হাইকোর্টে আপিল করে জামিন চান সাত্তার। হাইকোর্ট আপিল শুনানির জন্য গ্রহণ করে তাকে এক বছরের জামিন দেন।
 
কিন্তু সন্দেহ হওয়ায় তার আইনজীবীই বিষয়টি আদালতের নজরে আনেন। সোমবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ জামিনাদেশ প্রত্যাহার করে নেন। এছাড়া এ বিষয়ে আদেশের জন্য আগামী সোমবার দিন ঠিক করেন।
 
আদালতে আসামিপক্ষে ছিলেন আইনজীবী শেখ আতিয়ার রহমান। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মো. সারওয়ার হোসেন।
 
পরে মো. সারওয়ার হোসেন বাপ্পী সাংবাদিকদের বলেন, আইনজীবী শেখ আতিয়ার রহমান আদালতে এক আবেদনে বলেছেন, একটি জালিয়াত চক্র মিথ্যা তথ্য দিয়ে গত ১৫ সেপ্টেম্বর এ আদালত থেকে আবদুস সাত্তারের জামিন আদেশ নিয়েছে, বিষয়টি তদন্ত হওয়া দরকার। তখন হাইকোর্ট আবেদনটির সত্যতা যাচাই করার জন্য রাষ্ট্রপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন। আগামী সোমবার এ বিষয়ে আদেশ দেবেন হাইকোর্ট।
 
আইনজীবীরা জানান, ২০১৮ সালের ২ মে রাতে অস্ত্র ও গুলি নিয়ে আব্দুস সাত্তার আলমডাঙ্গা রেলবাজারে অবস্থান করছিল। এসময় পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সেখানে অভিযান চালিয়ে তাকে অস্ত্রসহ গ্রেফতার করে।

আলমডাঙ্গা থানার এসআই সুফল কুমার বিশ্বাস বাদী হয়ে পরদিন আব্দুস সাত্তারের নামে অস্ত্র আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই বছরের ৬ জুলাই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম আব্দুস সাত্তারকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। এই মামলায় ওই বছরের ৩১ অক্টোবর সাত্তারকে অস্ত্র আইনের দুই ধারায় ১৭ বছরের সাজা দেন আদালত।

বাংলাদেশ সময়: ২২০২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২১, ২০২০
ইএস/এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa