bangla news

শীতে বাড়ছে ডায়রিয়া-নিউমোনিয়া আক্রান্ত শিশুর সংখ্যা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-১৫ ৮:২৫:০০ এএম
শিশু ওয়ার্ডের মেঝে ও বারান্দায় দাঁড়ানোর জায়গা নেই। ছবি: বাংলানিউজ

শিশু ওয়ার্ডের মেঝে ও বারান্দায় দাঁড়ানোর জায়গা নেই। ছবি: বাংলানিউজ

সিরাজগঞ্জ: তীব্র শীতের কারণে সিরাজগঞ্জের হাসপাতালগুলোতে প্রতিনিয়ত বাড়ছে ডায়রিয়া আক্রান্ত শিশুর সংখ্যা। ১-৫ বছর বয়সী শিশুদের পাশাপাশি নবজাতকরাও এ রোগে বেশি আক্রান্ত হচ্ছে। একই সঙ্গে বাড়ছে নিউমোনিয়া আক্রান্ত শিশুর সংখ্যাও। 

মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) বিকেলে সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যার বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায় শিশু ওয়ার্ডের মেঝে ও বারান্দায় দাঁড়ানোর জায়গা নেই।

৪০ বেডের ওয়ার্ডে ডায়রিয়া আক্রান্ত ভর্তি শিশুর সংখ্যাই ৪৩। এছাড়াও নিউমোনিয়াসহ অন্য রোগে আক্রান্ত শিশুর সংখ্যা আরও ১৫। অপরদিকে এক থেকে ২৮ দিন বয়সী শিশু রোগীর সংখ্যা ১২। সিটের তুলনায় রোগীর সংখ্যা বেশি হওয়ায় হিমশিম খাচ্ছেন চিকিৎসক ও নার্সরা।

ওই হাসপাতালের শিশু বিভাগের মেডিক্যাল অফিসার ডা. সুমনা লায়লা বাংলানিউজকে বলেন, প্রচণ্ড শীতের কারণে শিশুদের মধ্যে ডায়রিয়ার প্রকোপ বেড়েছে। প্রতিদিনই নতুন নতুন রোগী আসছে। তবে দু-তিনদিন চিকিৎসা নেওয়ার পর বেশিরভাগ শিশুই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে যাচ্ছে।

এদিকে সিরাজগঞ্জ সিভিল সার্জন কার্যালয়ের পরিসংখ্যান কর্মকর্তা হুমায়ুন কবির বাংলানিউজকে বলেন, সিরাজগঞ্জ হাসপাতাল ছাড়াও জেলার অন্য হাসপাতালগুলোতে মঙ্গলবার বিকেল পর্যন্ত ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়ে ভর্তি শিশুর সংখ্যা ৬৬। শীতের শুরু থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত হাসপাতালে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত ভর্তি শিশুর সংখ্যা এক হাজার ৫৭৭। প্রতিদিনই ভর্তি রোগীর সংখ্যা বাড়ছে।

সিরাজগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. জাহিদুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, শীতে রোটা ভাইরাস ব্যাপক হারে ছড়িয়ে পড়ে। রোটা ভাইরাস খাবারের সঙ্গে মিশে পেটে যাওয়ায় শিশুরা ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে। এছাড়াও শৈতপ্রবাহের কারণে নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে অনেক শিশু। জেলার স্বাস্থ্য বিভাগ এ বিষয়ে সচেতন রয়েছে। হাসপাতালে ভর্তি শিশুদের সু-চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। যার কারণে বেশিরভাগ শিশুই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৮২৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৫, ২০২০
এসআরএস

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2020-01-15 08:25:00