bangla news

শেখ হাসিনা বার্ন ইনস্টিটিউট জরুরি বিভাগে চিকিৎসা ১ অক্টোবর

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-৩০ ৮:৪৫:৪০ পিএম
শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট/ফাইল ছবি

শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট/ফাইল ছবি

ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামে নামকরণ করা বিশ্বের সবচেয়ে বড় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের জরুরি বিভাগের কার্যক্রম শুরু হচ্ছে মঙ্গলবার (১ অক্টোবর)। দগ্ধ, গরম পানিতে ঝলসানো ছাড়াও যেকোনো দগ্ধ রোগী দ্রুত জরুরি সেবা পবেন আধুনিক এ বিভাগে। 

২০১৮ সালের ২৪ অক্টোবর ঢামেক সংলগ্ন চাঁনখারপুল এলাকায় বিশ্বের সর্ববৃহৎ (৫০০ শয্যা) ইনস্টিটিউটটিতে গিয়ে প্রতিষ্ঠানটির উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। 

শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের প্রকল্প পরিচালক প্রফেসর আবুল কালাম বাংলানিউজকে জানান, অনেক আগে থেকে আমরা রোগী ভর্তির কার্যক্রম শুরু করেছি। প্লাস্টিক সার্জারি প্রয়োজন এরকম ৫১ জন রোগীকে ভর্তি করা হয়েছে। কিছু টেকনিক্যাল কারণে জরুরি বিভাগ চালু করা হচ্ছিলো না। সব সমস্যা কাটিয়ে মঙ্গলবার থেকে জরুরি বিভাগে রোগীরা সেবা পাবেন। তিনি আরো জানান, এখন পর্যন্ত এ হাসপাতালে যে ৫১ জন রোগী ভর্তি আছেন তাদের অস্ত্রোপচার শুরু হবে আগামী বৃহস্পতিবার (৩ অক্টোবর) থেকে।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, লোকবলের জন্য আমরা অর্থ বরাদ্দ পেয়েছি এবং আউটসোর্সিংয়ের লোক নেওয়ার কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এছাড়া আমাদের চিকিৎসক ও নার্স আছে। আরো কিছু চিকিৎসক-নার্স প্রয়োজন, সেগুলো সরকার প্রক্রিয়া হিসেবে দিচ্ছে। আশা রাখি সব সমস্যা কাটিয়ে উঠে ১ অক্টোবর থেকে জরুরি বিভাগ চালু করা হচ্ছে।

ইনস্টিটিউটের মোট ৯টি ইউনিট করা হয়েছে। প্রফেসর চিকিৎসকরা প্রতিদিন রোগীদের সেবা দিয়ে যাবেন। একেক দিন একেক ইউনিটে ভর্তির কার্যক্রম থাকবে বলেও জানান প্রকল্প পরিচালক প্রফেসর আবুল কালাম।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০১৯
এজেডএস/জেডএস

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-30 20:45:40