bangla news

ক্যান্সারের অন্যতম কারণ বায়ু দূষণ

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৩-১০-১৮ ৭:০৯:২৮ এএম

দূষিত বায়ু ক্যান্সারের অন্যতম কারণ বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ক্যান্সার বিভাগ। দ্য ইন্টারন্যাশনাল অ্যাজেন্সি ফর রিসার্চ অন ক্যান্সার (আইএআরসি) প্রকাশিত তথ্যে দেখা যায়, ২০১০ সালে বিশ্বে বায়ু দূষণের কারণে দুই লাখ ২৩ হাজার মানুষ ফুসফুসের ক্যান্সারে মারা যান।

ঢাকা: দূষিত বায়ু ক্যান্সারের অন্যতম কারণ বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ক্যান্সার বিভাগ।

দ্য ইন্টারন্যাশনাল অ্যাজেন্সি ফর রিসার্চ অন ক্যান্সার (আইএআরসি) প্রকাশিত তথ্যে দেখা যায়, ২০১০ সালে বিশ্বে বায়ু দূষণের কারণে দুই লাখ ২৩ হাজার মানুষ ফুসফুসের ক্যান্সারে মারা যান।

বৃহস্পতিবার আইএআরসির প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। ফুসফুসের এ ক্যান্সার ব্লাড ক্যান্সারের ঝুঁকিও বহন করতে পারে বলে গবেষনায় এমন প্রমাণ মিলেছে।

আইএআরসি’র সহকারী প্রধান ডানা লুমিস এক বিবৃতিতে বলেন, বায়ু দূষণের ক্ষতিকর দিকগুলোর পাশাপাশি মানুষ যে বায়ু গ্রহণ করে তার ক্ষতিকর প্রভাব সর্ম্পকেও সচেতন করা আমাদের কাজ।

তিনি বলেন, গবেষনায় দেখা গেছে, মানুষের ফুসফুসের ক্যান্সারে পেছনে বায়ু দূষণের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ।

এরইমধ্যে প্রমাণিত হয়েছে যানবাহনের ধোঁয়া, বিদ্যুৎ উৎপাদন, শিল্প বা কৃষি কারখানার দূষিত পদার্থ নির্গমন ও রান্না থেকে উৎপাদিত তাপ বায়ু দূষণের প্রধান কারণ। বায়ু দূষণ শ্বাসকষ্ট ও হৃদরোগের মতো জটিল রোগ সৃষ্টির কারণ।

বিশেষজ্ঞরা বলেন, বিশ্বের অনেক বিশেষ করে জনবহুল দেশগুলোতে বায়ু দূষণ সহনীয় মাত্রাকে ছাড়িয়ে গেছে। উদাহরণ হিসেবে চীনের নামটি প্রথমে উল্লেখ করেন তারা।

বায়ু দূষণের যে সব ক্ষতিকর উপাদান ক্যান্সারের ক্ষেত্রে প্রধান ভূমিকা পালন করে সেগুলোকে গ্রুপ-১ ভুক্ত করেছেন আইএআরসি বিশেষজ্ঞেরা।

এ ধরনের ১০০টি ক্ষতিকর উপাদানের মধ্যে গ্রুপ-‍১ এ রয়েছে ‍অ্যাসবেস্টস, প্লাটুনিয়াম, সিলিকা কণা, আল্ট্রাভায়োলেট রেডিয়েশন ও তামাক থেকে নির্গত ধোঁয়া।

বাংলাদেশ সময়: ১৭০৭ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৮, ২০১৩
জেডএস/এসএফআই/আরআইএস

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2013-10-18 07:09:28