bangla news

ক্যানসার প্রতিরোধে শাক-সবজি ও ফলমূল

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৩-০৪-০১ ১১:০৭:২০ এএম

আমাদের চারপাশেই এমন প্রচুর ফলমূল ও শাক সবজি রয়েছে যাদের বিভিন্ন এন্টি-অক্সিডেন্ট ও ফাইটোকেমিক্যাল ক্যানসার প্রতিরোধে অত্যন্ত সহায়ক।

ঢাকা: আমাদের চারপাশেই এমন প্রচুর ফলমূল ও শাক সবজি রয়েছে যাদের বিভিন্ন এন্টি-অক্সিডেন্ট ও ফাইটোকেমিক্যাল ক্যানসার প্রতিরোধে অত্যন্ত সহায়ক।

সব ধরণের ক্যানসারের মধ্যে প্রায় ৩০ শতাংশই খাবারের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত। তাই খাদ্যাভ্যাসে সতর্কতা অবলম্বন করলে ক্যানসার প্রতিরোধ অনেকাংশেই সম্ভব। বেশি বেশি ফলমূল ও শাক সবজি গ্রহণ অনেক ধরণের ক্যানসার ও ক্রনিক অসুখ প্রতিরোধে কার্যকরী।

ক্যানসার প্রতিরোধী সবজির মধ্যে টমেটো অন্যতম। টমেটোতে আছে প্রচুর পরিমাণে লাইকোপিন, যা একটি শক্তিশালী এন্টি-অক্সিডেন্ট। লাইকোপিন পুরুষদের প্রস্টেট আর মহিলাদের জরায়ুর মুখ ও ডিম্বাশয়ের ক্যানসারের সম্ভাবনা হ্রাস করে। এ ছাড়া বৃহদান্ত্র, মলাশয়, পাকস্থলি, গ্রাসনালী ইত্যাদি অঙ্গের ক্যানসার প্রতিরোধেও টমেটো সহায়ক বলে বিভিন্ন গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে।

এছাড়া গাজর, পাকা পেঁপে, মিষ্টি আলু, লাল শাক ইত্যাদিও ক্যানসার প্রতিরোধী হিসেবে পরিচিত। এগুলো শক্তিশালী এন্টি-অক্সিডেন্ট `বিটা ক্যারোটিনের` গুরুত্বপূর্ণ উত্স। যার নিয়মিত গ্রহণ ক্যানসারের সম্ভাবনাকে হ্রাস করে।

এছাড়ও সীমে থাকা ফাইটো ক্যামিকেল `আইসোফ্ল্যাভোন` প্রস্টেট ক্যানসার প্রতিরোধে কার্যকর বলে ধারণা করেন বিশেষজ্ঞরা। পালং শাকেও রয়েছে প্রচুর পরিমাণ লুটিন ও ভিটামিন ই। এছাড়া পালং শাকের এন্টি-অক্সিডেন্ট লিভার, ডিম্বাশয়, কোলন ও প্রস্টেটের ক্যানসার প্রতিরোধে কার্যকর।

এর পাশাপাশি গ্রাসনালী, পাকস্থলি ও স্তনের ক্যানসারের সম্ভাবনা হ্রাস করতে রসুনও অত্যন্ত কার্যকর। রান্না করার মিনিট দশেক আগে কুচি কুচি করে কেটে রেখে দিলে রসুনের ক্যানসার প্রতিরোধের ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়।

ভিটামিন সি একটি শক্তিশালী এন্টি-অক্সিডেন্ট, আর ভিটামিন সি’র গুরুত্বপূর্ণ উত্স হলো আনারস। এ ছাড়া আনারসে আছে `ব্রোমেলেইন` নামে এক ধরণের এনজাইম যা স্তন ও ফুসফুসের ক্যানসার প্রতিরোধে সহায়ক হতে পারে।

আপেলও ক্যানসার প্রতিরোধী হিসেবে সুপরিচিত। এতে আছে `কোয়ার্সেটিন` নামের এক ধরণের এন্টি-অক্সিডেন্ট, যা পাকস্থলি ও কোলন ক্যানসারের সম্ভাবনা হ্রাস করে।

জনপ্রিয় পানীয় চায়েরও আছে ক্যানসার প্রতিরোধী ভূমিকা। এতে থাকা শক্তিশালী এন্টি-অক্সিডেন্ট `ইজিসিজি` পাকস্থলি, লিভার ও ত্বকের ক্যানসার প্রতিরোধে কার্যকর। তবে কালো চায়ের থেকে সবুজ চাই বেশি ভালো। সবুজ চায়ে এন্টি-অক্সিডেন্টের পরিমাণও বেশি।

চারপাশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা এসব ফলমূল ও শাক সবজির বিভিন্ন এন্টি-অক্সিডেন্ট ও ফাইটোকেমিক্যাল আমাদের জন্য অত্যন্ত জরুরি এবং ক্যানসার প্রতিরোধে সহায়ক। তাই স্বাস্থ্যকর ও ক্যানসারমুক্ত দীর্ঘ জীবনের জন্য দৈনন্দিন খাদ্য তালিকায় বিভিন্ন ধরনের ফলমূল ও শাকসবজি থাকা একান্ত আবশ্যক।

বাংলাদেশ সময়: ২১০০ ঘণ্টা, এপ্রিল ০১, ২০১৩
সম্পাদনা: রাইসুল ইসলাম, নিউজরুম এডিটর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2013-04-01 11:07:20