ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১, ১৮ জুলাই ২০২৪, ১১ মহররম ১৪৪৬

স্বাস্থ্য

অনুমোদনহীন ক্লিনিক বন্ধ করে দেওয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩৭ ঘণ্টা, জুন ১৮, ২০২৪
অনুমোদনহীন ক্লিনিক বন্ধ করে দেওয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

নারায়ণগঞ্জ: দেশের যেসব ক্লিনিকের অনুমোদন নেই বা চিকিৎসাসেবা দেওয়ার মতো মানসম্পন্ন নয় সেগুলো বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন।  

তিনি বলেন, প্রান্তিক পর্যায়ে স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দিতে দেশে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলোতে চিকিৎসাসেবার মান উন্নত করার প্রচেষ্টা চলছে।

মঙ্গলবার (১৮ জুন) দুপুরে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নব নির্মিত মুজিব কর্নারের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা জানান।  

এটি বাস্তবায়ন হলে রাজধানীসহ বিভাগীয় শহরের হাসপাতালগুলোতে রোগীদের চাপ অনেক কমে আসবে বলে মনে করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন।

বিশ্বের উন্নত রাষ্ট্রগুলোতে এনসিডি কর্নার অর্থাৎ নন-কমিউনিকুল ডিজিজ কর্নারের ওপর বিশেষ ওপর গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশেও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলোতে এনসিডি কর্নারের মাধ্যমে রোগীদের রক্ত চাপ, ডায়াবেটিস ও ক্যানসার নির্ণয়ের পরীক্ষা-নিরীক্ষার ব্যবস্থা করা হবে। এই সেবা চালু করলে দেশের বড় বড় হাসপাতালগুলোতে আর রোগীদের যেতে হবে না। স্থানীয়ভাবেই তারা জটিল রোগসহ সব ধরনের রোগের আধুনিক সেবা পাবেন।

ভুল চিকিৎসায় প্রায় অহরহ রোগীর মৃত্যুর বিষয়ে সাংবাদিকরা প্রশ্ন করলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেশের যেসব অনুমোদনহীন বেসরকারি ক্লিনিক বন্ধ করার পাশাপাশি চেতনানাশক এনেসথেসিক ড্রাগস হেলোথন ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হয়েছে। গত দুইদিন আগে ঢাকায় অভিযান চালিয়ে দুইজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে।

সরকারের এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কেউ হেলোথন ড্রাগস বিক্রি করলে, কোনো হাসপাতালে ব্যবহার করলে এবং কোনো চিকিৎসক এর সঙ্গে জড়িত থাকলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য (এমপি) আবদুল্লাহ আল কায়সার হাসনাত ও জেলা সিভিল সার্জন ডা. মুশিউর রহমানসহ বিভিন্ন বিভাগের চিকিৎসকরা।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩৭ ঘণ্টা, জুন ১৮, ২০২৪
এমআরপি/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।