bangla news

ইটনায় নৌদুর্ঘটনায় স্কুলছাত্রী নিখোঁজ

224 |
আপডেট: ২০১৫-১১-০১ ৯:১৪:০০ এএম

কিশোরগঞ্জের ইটনা উপজেলায় নৌদুর্ঘটনায় শর্মি রানী দাস (১১) নামে এক স্কুলছাত্রী নিখোঁজ হয়েছে। এ সময় স্কুলশিক্ষকসহ তিন জন আহত হয়েছেন। রোববার (১ নভেম্বর) বিকেলে উপজেলার ধনপুর ইউনিয়নের পার্শ্ববর্তী ধনু নদীতে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

কিশোরগঞ্জ: কিশোরগঞ্জের ইটনা উপজেলায় নৌদুর্ঘটনায় শর্মি রানী দাস (১১) নামে এক স্কুলছাত্রী নিখোঁজ হয়েছে। এ সময় স্কুলশিক্ষকসহ তিন জন আহত হয়েছেন।
 
রোববার (১ নভেম্বর) বিকেলে উপজেলার ধনপুর ইউনিয়নের পার্শ্ববর্তী ধনু নদীতে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
 
নিখোঁজ শর্মি রানী ধনপুর ইউনিয়নের সিলুনদিয়া গ্রামের দুলাল দাসের মেয়ে। সে সিলুনদিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির ছাত্রী।
 
আহতদের মধ্যে সিলুনদিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক তুলনা রানী দাস (২৪) ও ধনপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক তপদী রানী সরকারের (২৮) নাম জানা গেছে।  
 
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, উপজেলার ধনপুর ইউনিয়নের রামপুর গ্রাম থেকে একটি নৌকা সাত জন যাত্রী নিয়ে সিলুনদিয়া গ্রামে যাচ্ছিলো। পথে একটি বড় নৌকা যাত্রীবাহী নৌকাটিকে ধাক্কা দিলে স্কুলছাত্রী শর্মি পানিতে ডুবে নিখোঁজ হয়। 
 
এ সময় দুই স্কুল শিক্ষকসহ তিনজন আহত হয়। তাদের মধ্যে তুলনা রানী দাসকে আহত অবস্থায় ইটনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। পরে, সেখান থেকে তাকে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।
 
ধনপুর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান প্রদীপ চন্দ্র দাস দুর্ঘটনায় স্কুলছাত্রী নিখোঁজের বিষয়টি বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেছেন।
 
বাংলাদেশ সময়: ১০১৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ১, ২০১৫ 
এমজেড

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2015-11-01 09:14:00