bangla news

পঞ্চমবার পেছালো কিবরিয়া হত্যার চার্জ গঠনের তারিখ

330 |
আপডেট: ২০১৫-০৮-০৩ ৩:২৪:০০ এএম
শাহ এএমএস কিবরিয়া / ফাইল ফটো

শাহ এএমএস কিবরিয়া / ফাইল ফটো

পঞ্চমবারের মতো পেছালো বহুল আলোচিত সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া হত্যা চার্জ গঠনের তারিখ। সোমবার (০৩ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১১টায় সিলেটের বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে এ মামলার চার্জ গঠনের দিন নির্ধারিত ছিল।

সিলেট: পঞ্চমবারের মতো পেছালো বহুল আলোচিত সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়া হত্যা চার্জ গঠনের তারিখ।

সোমবার (০৩ আগস্ট) বেলা সাড়ে ১১টায় সিলেটের বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে এ মামলার চার্জ গঠনের দিন নির্ধারিত ছিল। কিন্তু মামলায় হাজতি আসামিদের আটজন উপস্থিত না থাকায় চার্জ গঠনের জন্য ফের তারিখ নির্ধারণ করা হয়।

আদালতের বিচারক মকবুল আহসান আগামী ১০ আগস্ট মামলার চার্জ গঠনের জন্য পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করেছেন। ওই দিন সব আসামিকে আদালতে উপস্থিত করার জন্য কারা কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

দ্রুতবিচার ট্রাইব্যুনালের পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট কিশোর কুমার এ তথ্য নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে বলেন, একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলার মামলায় সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবরসহ সাত আসামিকে অন্য আদালতে হাজির করা হয়েছে। এছাড়া অসুস্থতাজনিত কারণে সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) বরখাস্তকৃত মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীকে হাজির করা হয়নি। যে কারণে বিচারক এই মামলার চার্জ গঠনের নতুন তারিখ নির্ধারণ করেন।

তিনি জানান- হাজতি আসামিদের মধ্যে পাঁচজনকে আজ আদালতে হাজির করা হয়েছিল। তারা হলেন- নাঈম আহমদ আরিফ ওরফে নিমু, দেলোয়ার হোসেন রিপন, মো. বদরুল আলম মিজান, মিজানুর রহমান মিজান ও হবিগঞ্জ পৌরসভার বরখাস্তকৃত মেয়র জিকে গাউস।

গত ২১ জুন কারান্তরীণ ১৪ আসামির চারজনের উপস্থিতিতে সিলেট জেলা জজ আদালতে এই মামলার শুনানি কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়। এরপর চার্জ গঠনের জন্য চার দফা তারিখ পরিবর্তন হয়। সর্বশেষ সোমবার পঞ্চম দফায় মামলার চার্জ গঠনের তারিখ ছিল।

২০০৫ সালের ২৭ জানুয়ারি হবিগঞ্জের বৈদ্যের বাজারে জনসভায় গ্রেনেড হামলায় আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়াসহ পাঁচজন নিহত হন।

গ্রেনেড হামলার এ ঘটনায় জেলা আওয়ামী লীগের তৎকালীন সাংগঠনিক সম্পাদক ও বর্তমান সাধারণ সম্পাদক সংসদ সদস্য আব্দুর মজিদ খান বাদী হয়ে হত্যা ও বিস্ফোরক আইনে দু’টি মামলা দায়ের করেন।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৩১৬ ঘণ্টা, ‍আগস্ট ০৩, ২০১৫
এনইউ/এএএন/জেডএস

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2015-08-03 03:24:00