[x]
[x]
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ ফাল্গুন ১৪২৫, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
bangla news

ভুল বোঝাবুঝিতে মায়ানমার সীমান্তে গুলি

740 |
আপডেট: ২০১৫-০৬-১৭ ৪:০৭:০০ এএম
ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

মায়ানমার সীমান্তে নাফ নদীতে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও মায়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) গুলির ঘটনা ভুল বোঝাবুঝির কারণে ঘটেছে। এ নিয়ে পতাকা বৈঠক হবে। বৈঠকে এর কারণ খুঁজে বের করা হবে। ফিরিয়ে আনা হবে বিজিবির নায়েককে।

ঢাকা: মায়ানমার সীমান্তে নাফ নদীতে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও মায়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশের (বিজিপি) গুলির ঘটনা ভুল বোঝাবুঝির কারণে ঘটেছে।

এ নিয়ে পতাকা বৈঠক হবে। বৈঠকে এর কারণ খুঁজে বের করা হবে। ফিরিয়ে আনা হবে বিজিবির নায়েককে।

বুধবার (১৭ জুন) দুপুরে সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল সাংবাদিকদের এ কথা জানান।

বুধবার ভোরে কক্সবাজার উপজেলার নীলা ইউনিয়নের জাদিমোরার কাছে নাফ নদীর লালদিয়া-সংলগ্ন এলাকায় বাংলাদেশ ও মায়ানমারের সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর মধ্যে গুলি বিনিময়ের ঘটনা ঘটে।

এতে বিজিবির সিপাহী বিপ্লবসহ (২১) দুজন আহত হন। আর নায়েক রাজ্জাক মায়ানমার সীমান্তের ওপারে রয়ে যান।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, যখন বিজিবি সীমান্তের এপারে টহল দিচ্ছিল তখন বিজিপিও ওপারে টহল দিচ্ছিল। টহলের সময় বিজিবি মাছ ধরার জালে বাধাপ্রাপ্ত হয়। এতে দুইপক্ষের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝির সৃষ্টি হয়।

এক পর্যায় গুলি বিনিময় হয়। তাদের গুলিতে আমাদের দুইজন সামান্য আহত হন। আর মাছ ধরা জালে বাধাপ্রাপ্ত হয়ে আমাদের আরো একজন ওপারে রয়ে গেছেন।

প্রতিমন্ত্রী জানান, নাফ নদীর সীমান্তে গুলি নিয়ে পতাকা বৈঠক হবে। এ নিয়ে কেন ভুল বোঝাবুঝি হলো, তা খুঁজে বের করা হবে। আর একজন নায়েক ওপারে (মায়ানমারে) রয়ে গেছে। পতাকা বৈঠকের পর তাকে ফেরত আনা হবে।

দুই দেশের সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর দু’পক্ষে গুলির ঘটনা ঘটেছে উল্লেখ করে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী বলেন, আমাদের পক্ষেও ৯/১০ রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়েছে। ভুল বোঝাবুঝি কেন হলো তার কারণ খুঁজে বের করা হবে। সীমান্তে আরো সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে।

নাসাকা বাহিনী অপরজনকে অপহরণ করেছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, অপহরণ করা হয়নি। মাছ ধরা জালে বাধাপ্রাপ্ত হয়ে তিনি ওপারে রয়ে গেছেন। জলসীমার অর্ধেকটা আমরা নিয়ন্ত্রণ করি। 

শুধু মায়ানমারের সীমান্তই নয়, ভারত সীমান্তেও বর্ডার কিলিং কমে গেছে, যোগ করেন প্রতিমন্ত্রী।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৫৯ ঘণ্টা, জুন ১৭, ২০১৫
এসএমএ/এবি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14