bangla news

আলোচনা মানে ‘কুকীর্তি’ উস্কে দেওয়া

564 |
আপডেট: ২০১৫-০২-১১ ২:৫৩:০০ এএম
শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু

সংলাপের নামে আলোচনা মানে কুকীর্তিকে উস্কে দেওয়া বলে জানিয়েছেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু। বুধবার সকালে (১১ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ‘বেসরকারি খাতের উত্তম ব্যবস্থাপনার জন্য তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি এ কথা জানান।

ঢাকা: সংলাপের নামে আলোচনা মানে কুকীর্তিকে উস্কে দেওয়া বলে জানিয়েছেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু।
 
বুধবার সকালে (১১ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ‘বেসরকারি খাতের উত্তম ব্যবস্থাপনার জন্য তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি এ কথা জানান।
 
তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগ ও বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসের (বেসিস) উদ্যোগে ৯-১২ ফেব্রুয়ারি ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড মেলা চলছে। এ উপলক্ষে বুধবার এ সেমিনারের আয়োজন করা হয়।
 
আমু বলেন, আজকে দেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, তখন দেশের অগ্রগতিকে বাধাগ্রস্ত করা হচ্ছে। হরতাল-অবরোধের নামে পেট্রোল-বোমা, নাশকতা করে সাধারণ মানুষকে হত্যা করা হচ্ছে। সচেতন মানুষ আজকে হত্যার রাজনীতিকে নিষ্ক্রিয় করে দিচ্ছে। রুখে দাঁড়াচ্ছে।

যারা আলোচনার কথা বলেন তাদের উদ্দেশে আমু বলেন, পরিস্থিতি বর্তমানে নিয়ন্ত্রণে। অনেকে আজ আবার আলোচনা করার প্রস্তাব দেন।
 
তিনি তাদের উদ্দেশে প্রশ্ন রাখেন, কাদের সঙ্গে আলোচনা করব? সন্ত্রাসী, জঙ্গিদের সঙ্গে আলোচনা মানে তো কুকীর্তিকে উস্কে দেওয়া। এটা রাজনীতি নয়, এটা সন্ত্রাস। এ কুকীর্তিকে উস্কে দিলে আমরাও তো বিরোধীদলে গেলে এমন কুকীর্তি করবো!

আমু বলেন, আমরাও হরতাল-অবরোধ করেছি। লাখ লাখ লোক নিয়ে মহাসড়ক অবরোধ করেছি। সন্ত্রাসী কার্যকলাপ করিনি। আজকে কর্মসূচির নামে সন্ত্রাসী কার্যকলাপ হচ্ছে।

এ সময় কোনোদিন আলোচনা হবে না বলে হুঁশিয়ারি দেন তিনি।
 
বিদেশে জনশক্তি রফতানিতে ‘দক্ষ শ্রমিক’ তৈরি করা হচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, সরকার ‘দক্ষ শ্রমিক’ তৈরির কাজে হাত দিয়েছে। বেশ কয়েকটি দেশ ‘দক্ষ শ্রমিক’ তৈরিতে সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে।
 
তিনি বলেন, সফটওয়্যার নির্মাণ শিল্পে আমাদের মেধাকে কাজে লাগানো সম্ভব। এর মাধ্যমে দেশে তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহারে বিপ্লব ঘটানোর পাশাপাশি সফটওয়্যার রফতানির সুযোগ তৈরি হবে।
 
উন্নত দেশগুলোতে আইটি প্রফেশনাল ও দক্ষ জনবল রফতানি করে রেমিট্যান্স বাড়ানো যেতে পারে। সফটওয়্যারের রফতানির ক্ষেত্রে সব সহায়তা দেওয়া হবে বলে জানান বাণিজ্যমন্ত্রী।
 
অনুষ্ঠানে বিজিএমইএ সভাপতি আতিকুল ইসলাম, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুনসহ বেসিস কর্মকর্তারা উপস্থিত রয়েছেন।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৩৫২ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৫

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2015-02-11 02:53:00