bangla news

ময়মনসিংহ হাসপাতালে সাংবাদিক নিষিদ্ধ!

315 |
আপডেট: ২০১৪-০৪-২৪ ৭:৪৪:০০ এএম
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে শিক্ষার্থীদের নামে একটি ‘বিশেষ বিজ্ঞপ্তি’ প্রকাশ করা হয়েছে, যেখানে প্রতিষ্ঠানটিতে সাংবাদিকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার কথা লিখা আছে।

ময়মনসিংহ: ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে শিক্ষার্থীদের নামে একটি ‘বিশেষ বিজ্ঞপ্তি’ প্রকাশ করা হয়েছে, যেখানে প্রতিষ্ঠানটিতে সাংবাদিকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার কথা লিখা আছে। তবে কলেজ কর্তৃপক্ষ বলেছে, তারা এ ব্যাপারে কিছুই জানেন না।

হাসপাতালের জরুরি বিভাগসহ বিভিন্ন দেয়ালে সাঁটানো এ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, “বিশেষ বিজ্ঞপ্তি: দালাল এবং সাংবাদিকদের প্রবেশ নিষেধ; কোনো প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনার শিকার হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে না। প্রচারে- ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের ছাত্রছাত্রীবৃন্দ।”

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও রাজধানীর মিডফোর্ড হাসপাতালে  সাংবাদিকদের উপর চিকিৎসকদের হামলার ঘটনায় দেশজুড়ে ব্যাপক সমালোচনার মধ্যে বৃহস্পতিবার মমেক হাসপাতালের বিভিন্ন দেয়ালে এ ধরনের বিজ্ঞপ্তি দেখে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন স্থানীয় সাংবাদিকরা। তারা একে ‘উস্কানিমূলক’ বলে মনে করছেন।

মাত্র দু’মাস আগে মমেক হাসপাতালে শিক্ষানবিশ চিকিৎসকদের হাতে বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলের ৩ সাংবাদিক লাঞ্ছিত হন। এছাড়াও সাম্প্রতিককালে হাসপাতালের জনবল নিয়োগ নিয়ে অনিয়ম ও দুর্নীতির চিত্র প্রকাশ করায় সাংবাদিকদের উপর ক্ষুব্ধ একটি মহল।

এ ব্যাপারে বিকেলে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা: মতিউর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, আপনার কাছ থেকে এ বিষয়টি আমি প্রথম শুনলাম। আমার জানামতে, হাসপাতালে সাংবাদিকদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তবে কে বা কারা এ কাজটি করেছে তা আমরা তদন্ত করে দেখবো।

মমেক হাসপতালের উপ-পরিচালক ও দায়িত্বপ্র‍াপ্ত পরিচালক ডা: মো: জাহাঙ্গীর আলম ভূইয়া জানান, কে বা কারা এ বিজ্ঞপ্তি হাসপাতালের দেয়ালে দেয়ালে লাগিয়েছে তা আমার জানা নেই।  বিজ্ঞপ্তিটি আমারও চোখে পড়েছে।  তবে এ রকম লেখা উচিত হয়নি।

এসব বিজ্ঞপ্তি দ্রুত অপসারণ করা হবে বলে আশ্বাস দেন হাসপাতালের শীর্ষ এ কর্মকর্তা।

এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে প্রেসক্লাব ময়মনসিংহের সাধারণ সম্পাদক মো. শামসুল আলম খান বলেন, শিক্ষার্থীদের নামে প্রচারিত এ ধরনের বিজ্ঞপ্তি হাসপাতালের দেয়ালে শোভা পাবে আর কর্তৃপক্ষ বলবেন এটা তাদের জানা নেই, এটা হতে পারে না। এ ব্যাপারে দায়-দায়িত্ব কার সেটা প্রকাশ করতে হবে।

হাসপাতালে সাংবাদিক নিষিদ্ধ করার এ নোটিশের নেপথ্যে গভীর ষড়যন্ত্র রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, দ্রুত এটি অপসারণ করে আনুষ্ঠানিকভাবে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে তাদের অবস্থান পরিস্কার করতে হবে। 

ময়মনসিংহ টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু সালেহ মো. মূসা বলেন, রামেকের মতো ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেও সাংবাদিকদের উপর ইতিপূর্বে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এখন একটি মহলের উস্কানিতেই এ ধরনের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।

দালালদের সঙ্গে সাংবাদিকদের মিলিয়ে তাদেরকে হাসপাতালে নিষিদ্ধের কার্যক্রমে যারা জড়িত তাদের মুখোশ উন্মোচন করার দাবি জানান আবু সালেহ মো. মূসা। 

বাংলাদেশ সময়: ১৭২০ ঘণ্টা, এপ্রিল ২৪, ২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2014-04-24 07:44:00