ঢাকা, শনিবার, ১২ আষাঢ় ১৪২৯, ২৫ জুন ২০২২, ২৫ জিলকদ ১৪৪৩

ফুটবল

ভিনিসিয়াসে বিধ্বস্ত লেভান্তে

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯২৯ ঘণ্টা, মে ১৩, ২০২২
ভিনিসিয়াসে বিধ্বস্ত লেভান্তে

লা লিগার শিরোপা আগেই নিশ্চিত করেছে রিয়াল মাদ্রিদ। লিগের শেষ ম্যাচগুলোতে তাই নির্ভার ফুটবল খেলছেন করিম বেনজেমা-ভিনিসিয়াসরা।

বৃহস্পতিবার রাতে লিগের শীর্ষ দল রিয়ালের ঘরের মাঠ সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে মাঠে নেমেছিল লেভান্তে। ম্যাচে ভিনিসিয়াসের হ্যাটট্রিকে লেভান্তেকে ৬-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে রিয়াল। অপর তিনটি গোল করেছেন করিম বেনজেমা, রদ্রিগো এবং ফোরল্যান্ড মেন্ডি। রিয়ালের জয়ে বড় ভূমিকা রেখেছেন লুকা মদ্রিচ। অ্যাসিস্টের হ্যাটট্রিক করেছেন এই পরীক্ষিত সেনানী।

আগের ম্যাচে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে নিজেদের মেলে ধরতে পারেনি রিয়াল। বেশ কয়েকজন তারকা বিশ্রামে দিয়ে দল সাজিয়েছিলেন কোচ কার্লো আনচেলত্তি। তবে এই ম্যাচে পূর্ণ শক্তির দলই মাঠে নামিয়েছেন রিয়াল কোচ। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ম্যাচের আগে সকলের প্রয়োজনীয় বিশ্রাম এবং ছন্দে থাকা নিশ্চিত করতে চান তিনি।

ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমনের পসরা সাজিয়ে বসেছিল রিয়াল। পুরো ম্যাচে বল পায়ে পেলেই আক্রমণে উঠেছে লস ব্লাঙ্কোসরা। গোলের জন্য শট করেছে ২৭টি, যার মধ্যে জাল বরাবরই ছিল ১৬টি। গোল উৎসব করা ম্যাচে প্রথমার্ধেই চার গোল করেছে লস ব্লাঙ্কোসরা। দ্বিতীয় মিনিটেই প্রথম সুযোগ পায় রিয়াল। তবে বেনজেমার শট কোনোমতে ঠেকিয়ে দেন লেভান্তে গোলরক্ষক। তবে বেশিক্ষণ ঠেকিয়ে রাখতে পারেননি তিনি। ১৩ মিনিটে রিয়ালকে এগিয়ে নেন মেন্ডি।

মদ্রিচের উঁচু করে বাড়ানো বলে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন ফরাসি ফুটবলার। মিনিট ছয়েক পর স্কোরশিটে নাম তোলেন করিম বেনজেমা। এবার বলের জোগান দেন ভিনিসিয়াস। ম্যাচের বয়স আধঘণ্টা পেরোতেই বল জালে পাঠান রদ্রিগো। কিন্তু অফসাইডের কারণে বাতিল হয়ে যায় সেটি। তবে ৩৪ মিনিটে ভুল হয়নি রদ্রিগোর। এবার মদ্রিচের এগিয়ে দেওয়া বলে ট্যাপ-ইন করে স্কোরলাইন ৩-০ করেন এ ব্রাজিলিয়ান তরুণ।

বিরতির বাঁশি বাজার আগে গোলের হালিপূরণ করেন আরেক ব্রাজিলিয়ান ভিনিসিয়াস। এই গোলের যোগান দিয়ে অ্যাসিস্টের হ্যাটট্রিক করেন করিম বেনজেমা। দ্বিতীয়ার্ধে ৬৮ ও ৮৩ মিনিটে গোল করে হ্যাটট্রিক তুলে নেন ভিনিসিয়াস।

লড়াইটা যে শীর্ষ দলের সঙ্গে তলানির দলের তা মাঠের পারফরম্যান্সেই বোঝা গেছে। দ্বিতীয়ার্ধে রিয়াল বেশ কিছু সুযোগ হাতছাড়া না করলে ব্যবধান হতে পারতো আরও বড়। ৩৬ ম্যাচে চ্যাম্পিয়ন রিয়ালের সংগ্রহ ৮৪ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে দুইয়ে থাকা বার্সেলোনার সংগ্রহ ৭২ পয়েন্ট। তিনে থাকা অ্যাটলেটিকোর ঝুলিতে আছে ৬৭ পয়েন্ট। রিয়ালের কাছে ৬ গোল খাওয়া লেভান্তে ২৯ পয়েন্ট নিয়ে আছে সবার নিচে।

বাংলাদেশ সময়: ০৯২৮ ঘণ্টা, মে ১৩, ২০২২
এআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa