bangla news
ইতিহাসের এই দিনে

জওহরলাল নেহরুর জন্ম

ফিচার ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১৪ ১২:০৩:১১ এএম
জওহরলাল নেহরু

জওহরলাল নেহরু

ইতিহাস আজীবন কথা বলে। ইতিহাস মানুষকে ভাবায়, তাড়িত করে। প্রতিদিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা কালক্রমে রূপ নেয় ইতিহাসে। সেসব ঘটনাই ইতিহাসে স্থান পায়, যা কিছু ভালো, যা কিছু প্রথম, যা কিছু মানবসভ্যতার আশীর্বাদ-অভিশাপ।

তাই ইতিহাসের দিনপঞ্জি মানুষের কাছে সব সময় গুরুত্ব বহন করে। এ গুরুত্বের কথা মাথায় রেখে বাংলানিউজের পাঠকদের জন্য নিয়মিত আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিন’।

১৪ নভেম্বর ২০১৯ বৃহস্পতিবার। ২৯ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরি। এক নজরে দেখে নিন ইতিহাসের এই দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনা
১৫৩৩- স্প্যানিশদের ইকুয়েডর আবিষ্কার ও দখল।
১৮৯৬- উত্তর আমেরিকার নায়াগ্রা জলপ্রপাতে বিদ্যুৎকেন্দ্র চালু।
১৯০৮- খ্যাতনামা বিজ্ঞানী আলবার্ট আইনস্টাইন প্রথম আলোক সংক্রান্ত কোয়ান্টাম তত্ত্ব উপস্থাপন করেন।

জন্ম
১৮৮৯- উপমহাদেশের স্বাধীনতা আন্দোলনের অন্যতম নেতা ও ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরু।

তার বাবা মতিলাল নেহরু ব্রিটিশ ভারতের একজন নামজাদা ব্যারিস্টার ও রাজনীতিবিদ ছিলেন। মহাত্মা গান্ধীর তত্ত্বাবধানে নেহরু ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের অন্যতম প্রধান নেতা হিসেবে আবির্ভূত হন। ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তিনি ১৯৪৭ সালের ১৫ আগস্ট স্বাধীন ভারতের পতাকা উত্তোলন করেন। 

নেহরু ছিলেন একজন দূরদৃষ্টিসম্পন্ন, আদর্শবাদী ও আন্তর্জাতিকভাবে খ্যাতিসম্পন্ন ব্যক্তিত্ব। লেখক হিসেবেও তিনি ছিলেন দক্ষ। ইংরেজিতে লেখা তার তিনটি বই চিরায়ত সাহিত্যের মর্যাদা লাভ করেছে। পরবর্তীকালে তার মেয়ে ইন্দিরা গান্ধী ও দৌহিত্র রাজীব গান্ধী ভারতের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন।

১৯২২- মিশরীয় কূটনীতিক ও জাতিসংঘের ষষ্ঠ মহাসচিব বুট্রোস ঘালি।
১৯৩৮- মুক্তিযুদ্ধের সেক্টর কমান্ডার বীরউত্তম কর্নেল আবু তাহের।

মৃত্যু
১৭১৬- জার্মান দার্শনিক ও গণিতবিদ গটফ্রিট লাইবনিৎস।
১৮৩১- জার্মান দার্শনিক ফ্রেডরিখ হেগেল।

তার পুরো নাম গেয়র্গ ভিলহেল্ম ফ্রিডরিখ হেগেল। জার্মান দর্শন ও ভাববাদে ফ্রেডরিখ হেগেলের গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছেন। তাকে মহাদেশীয় দর্শন ও মার্কসবাদের গুরুত্বপূর্ণ অগ্রদূত হিসবে বিবেচনা করা হয়। বাস্তবতার ক্ষেত্রে তার ঐতিহাসিক ও ভাববাদী অবস্থান ইউরোপীয় দর্শনকে বিপ্লবের দিকে ধাবিত করে। হেগেলের রাজনৈতিক ব্যাখ্যা পরবর্তীকালে স্বৈরতান্ত্রিক ও ফ্যাসিবাদী রাষ্ট্রযন্ত্রের আদর্শগত হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে। হেগেলের দর্শন থেকে পরবর্তীতে দু’টি পরস্পর বিরোধী ধারার বিকাশ ঘটে এগুলোর একটি হচ্ছে মার্কসবাদ বা দ্বান্দ্বিক বস্তুবাদ, অন্যটি হচ্ছে নবভাববাদ ও স্বৈরতান্ত্রিক রাজনৈতিক মতবাদ।

১৯১৬- ইংরেজি ভাষার অন্যতম শ্রেষ্ঠ ছোট গল্পকার হেক্টর হুগ মুনরোর।

বাংলাদেশ সময়: ০০০১ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৪, ২০১৯
টিএ/এএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-14 00:03:11