bangla news

গানের ঝরণা তলায় মানবিক সাধনার অবগাহন

ফিচার রিপোর্টার | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৭-৩০ ১২:৩০:৩৮ এএম
বেঙ্গল ফাউন্ডেশনে আয়োজিত ‘গানের ঝরণা তলায়’ অনুষ্ঠান। ছবি: বাংলানিউজ

বেঙ্গল ফাউন্ডেশনে আয়োজিত ‘গানের ঝরণা তলায়’ অনুষ্ঠান। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: সঙ্গীত প্রিয় মানুষগুলোকে আরও একটু জনরুচি, মনন ও মানবিক সাধনার মাত্রা সঞ্চারের প্রয়াস নিয়ে অনুষ্ঠিত হলো ‘গানের ঝরণা তলায়’।

সোমবার (২৯ জুলাই) বিকেলে রাজধানীর ছায়ানট মিলনায়তনে বেঙ্গল ফাউন্ডেশনের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হলো দুই দিনব্যাপী এই আয়োজনের প্রথম দিনের অংশ।

আয়োজনের প্রথম দিনের শুরুতেই শিল্পী সুবীর নন্দী স্মরণে অনুষ্ঠিত হয় গানের আসর ‘প্রাণের খেলা’। এসময় সুবীর নন্দীর জীবনের ওপর একটি সংক্ষিপ্ত ভিডিওচিত্র প্রদর্শনের মাধ্যমে শুরু হয় আয়োজন।

এরপর সুবীর নন্দীকে স্মরণ করে বক্তব্য রাখেন তার মেয়ে ফাল্গুনী নন্দী ও সংগীত ব্যক্তিত্ব সাদিয়া আফরিন। তারা দুজনেই স্মৃতিচারণ করে বলেন, সুবীর নন্দী ছিলেন একজন প্রকৃত সঙ্গীত প্রেমী। সঙ্গীত চর্চায় বা গান শোনার ক্ষেত্রেও তিনি কখনও আপোষ করেননি। বাংলাদেশের সঙ্গীত জগৎ একজন সঙ্গীত সাধককে হারিয়েছে।

আয়োজনের দ্বিতীয় অধিবেশনে নজরুল সঙ্গীত পরিবেশন করেন নবীন শিল্পী জারিফ একরাম ও ঐশ্বর্য সমদ্দার। তারা ‘মেঘ মেদুর বরষায় কোথা তুমি’, ‘শাওন আসিল ফিরে’, ‘পরদেশী মেঘ যাওরে ফিরে’, ‘মনে পড়ে আজ সে কোন জনমে’সহ আরও কিছু গান পরিবেশন করেন।

এরপর ছিল বিশিষ্ট সঙ্গীত শিল্পী প্রিয়াংকা গোপের পরিবেশনা। তিনি সুবীর নন্দীর গান ‘কি যে ব্যাথা’ গেয়ে তার পরিবেশনা শুরু করেন। এরপর একে একে গেয়ে শোনান ‘ঘুমিয়ে গেছে শান্ত হয়ে’, ‘উচাটন মন’, ‘দ্বীপ নিভিয়াছে ঝড়ে’, ‘রুমঝুম রুমঝুম’, ‘এ কেমন রাত্রি এলো’, ‘তোমার আশায় পথ চাওয়া’সহ আরও কিছু গান।

আয়োজনের সেসব গান নিজেদের ভেতর পরম ভালোবাসায় টেনে নিয়েছে দর্শক শ্রোতারা। সংস্কৃতিচর্চার বহুমুখী কর্মপ্রবাহের মধ্য দিয়ে তারা অবগাহন করেছে গানের ঝরণা তলায়।

পুরো আয়োজন জুড়ে যন্ত্রানুষঙ্গে ছিলেন কী-বোর্ডে বিনোদ রায়, তবলায় ইফতেখার আলম ডলার, গিটারে নাসির উদ্দিন ও বাঁশিতে মামুনুর রশিদ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন বেঙ্গল ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক লুভা নাহিদ চৌধুরী।

মঙ্গলবার (৩০ জুলাই) আয়োজনের দ্বিতীয় দিন পঞ্চ কবির বর্ষার গান পরিবেশন করবে জাতীয় রবীন্দ্রসঙ্গীত সম্মিলন পরিষদ ঢাকা মহানগর শাখা। প্রথম দিনের মতো দ্বিতীয় দিনের আয়োজনও উন্মুক্ত রাখা হয়েছে সকলের জন্য।

বাংলাদেশ সময়: ০০২৮ ঘণ্টা, জুলাই ৩০, ২০১৯
এইচএমএস/এনটি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-07-30 00:30:38