ঢাকা, মঙ্গলবার, ৪ আষাঢ় ১৪২৬, ১৮ জুন ২০১৯
bangla news
ইতিহাসের এই দিনে

মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্ম

ফিচার ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৫-১৯ ১:১৩:৪৫ এএম
কথাসাহিত্যিক মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়

কথাসাহিত্যিক মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়

ঢাকা: ইতিহাস আজীবন কথা বলে। ইতিহাস মানুষকে ভাবায়, তাড়িত করে। প্রতিদিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা কালক্রমে রূপ নেয় ইতিহাসে। সেসব ঘটনাই ইতিহাসে স্থান পায়, যা কিছু ভালো, যা কিছু প্রথম, যা কিছু মানবসভ্যতার আশীর্বাদ-অভিশাপ।

তাই ইতিহাসের দিনপঞ্জি মানুষের কাছে সবসময় গুরুত্ব বহন করে। এই গুরুত্বের কথা মাথায় রেখে বাংলানিউজের পাঠকদের জন্য নিয়মিত আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিনে’।

১৯ মে ২০১৯, রোববার। ০৫ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ। এক নজরে দেখে নিন ইতিহাসের এই দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনা
১৮৯৭- ব্রিটিশ কবি অস্কার ওয়াইল্ডের কারামুক্তি।
১৯৯১- সাবেক যুগশ্লাভিয়াভুক্ত ক্রোয়েশিয়াদের স্বাধীনতার জন্য গণভোট।
২০০১- প্রথম অ্যাপল রিটেইল স্টোর উদ্বোধন।

জন্ম
১৭৬২- ইয়োহান গটলিব ফিকটে, জার্মান দার্শনিক।
১৭৭৩- সিসমন্দি, জেনেভায় জন্মগ্রহণকারী অর্থনীতিবিদ ও লেখক।
১৮৮১- কামাল আতাতুর্ক, তুরস্কের প্রথম রাষ্ট্রপতি।
১৯০৮- মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়, বিংশ শতাব্দীর অন্যতম বাঙালি কথাসাহিত্যিক। 

তার প্রকৃত নাম প্রবোধকুমার বন্দ্যোপাধ্যায়। ১৯ মে ১৯০৮ সালে বিহারে জন্ম (বর্তমান ঝাড়খণ্ড রাজ্যের দুমকা শহরে)। তার রচনার মূল বিষয়বস্তু ছিল মধ্যবিত্ত সমাজের কৃত্রিমতা, শ্রমজীবী মানুষের সংগ্রাম, নিয়তিবাদ ইত্যাদি। ফ্রয়েডীয় মনঃসমীক্ষণ ও মার্কসীয় শ্রেণীসংগ্রাম তত্ত্ব দ্বারা গভীরভাবে প্রভাবিত হয়েছিলেন যা তার রচনায় ফুটে উঠেছে। জীবনের অতি ক্ষুদ্র পরিসরে তিনি রচনা করেন ৪২টি উপন্যাস ও দুই শতাধিক ছোটগল্প। তার রচিত পুতুলনাচের ইতিকথা, দিবারাত্রির কাব্য, পদ্মা নদীর মাঝি ইত্যাদি উপন্যাস ও অতসী মামী, প্রাগৈতিহাসিক, ছোট বকুলপুরের যাত্রী ইত্যাদি গল্পসংকলন বাংলা সাহিত্যের অন্যতম শ্রেষ্ঠ সম্পদ বলে বিবেচিত হয়। ইংরেজি ছাড়াও তার রচনা বহু বিদেশি ভাষায় অনূদিত হয়েছে। ১৯৫৬ সালের ৩ ডিসেম্বর, মাত্র আটচল্লিশ বছর বয়সে বিংশ শতাব্দীর অন্যতম শক্তিশালী এ কথাসাহিত্যিকের জীবনাবসান ঘটে।

মৃত্যু
১৯৫৮- স্যার যদুনাথ সরকার, স্বনামধন্য বাঙালি ইতিহাসবিদ।

বাংলাদেশ সময়: ০১১২ ঘণ্টা, মে ১৯, ২০১৯
টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ফিচার
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-05-19 01:13:45