ঢাকা, শনিবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৩ আগস্ট ২০২২, ১৪ মহররম ১৪৪৪

পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য

সুন্দরবন-জীববৈচিত্র্য ধ্বংস করে গাছ লাগালে পরিবেশ সুরক্ষা হবে না

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৩৫ ঘণ্টা, জুন ৫, ২০২১
সুন্দরবন-জীববৈচিত্র্য ধ্বংস করে গাছ লাগালে পরিবেশ সুরক্ষা হবে না মানববন্ধন। ছবি: বাংলানিউজ

বাগেরহাট: সুন্দরবন পৃথিবীর একক বৃহত্তম ম্যানগ্রোভ বন। এটি বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের মানুষকে মায়ের মতো আগলে রাখে।

কিন্তু মনুষ্যসৃষ্টি নানা কাজে সুন্দরবন আজ হুমকির মুখে। সুন্দরবনসহ দেশের সব প্রাকৃতিক বনাঞ্চল ও জীববৈচিত্র্য রক্ষার জন্য আমাদের সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিতে হবে। সুন্দরবনসহ জীববৈচিত্র্য ধ্বংস করে শুধুমাত্র গাছ লাগিয়ে পরিবেশ সুরক্ষা হবে না। পৃথিবীতে প্রাণের অস্তিত্ব টিকিয়ে রাখতে জীববৈচিত্র্য ও বাস্তুতন্ত্রকে গুরুত্ব দিতে হবে।

শনিবার (৫ জুন) সকাল ১০টায় বাগেরহাটের মোংলার সুন্দরবন সংলগ্ন তেলিখালির পশুর নদীর পাড়ে বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে “বাস্তুতন্ত্র পুনরুদ্ধার” প্রতিপাদ্য নিয়ে আয়োজিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে বক্তারা এসব কথা বলেন।  

বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা), ওয়াটারকিপার্স বাংলাদেশ এবং পশুর রিভার ওয়াটারকিপার্স এর আয়োজনে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।  

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন- বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলনের (বাপা) মোংলার আহ্বায়ক সাংবাদিক মো. নূর আলম শেখ, বাপা নেতা গীতিকার মোল্লা আল মামুন, গীতা হালদার, চিলা কৃষিজমি রক্ষা আন্দোলনের নেতা মো. আলম গাজী, বিজন কুমার বৈদ্য, জাকির মোসাল্লী, হেম রায়, আলাউদ্দিন শেখ, গৌর রায়, ইশারাত ফকির, পশুর রিভার ওয়াটারকিপার ভলান্টিয়ার শেখ রাসেল প্রমুখ।

বক্তারা আরও বলেন, মুনাফালোভী ব্যবসা-বাণিজ্য ও অপরিকল্পিত শিল্পায়নের কারণে সুন্দরবনের প্রাণ পশুর নদী দখল এবং দূষণ হচ্ছে। এর ফলে সুন্দরবনের বাস্তুতন্ত্র আজ হুমকিতে রয়েছে। সুন্দরবন সংলগ্ন এলাকায় বনবিনাশী সব উন্নয়ন প্রকল্প বাতিলের আহ্বান জানান অংশগ্রহণকারীরা।  

বাংলাদেশ সময়: ৯১৩৫ ঘণ্টা, জুন ০৫, ২০২১
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa