ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৮ মে ২০২৪, ১৯ জিলকদ ১৪৪৫

বিনোদন

ক্রিকেটার জাদেজার সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন মাধুরী

বিনোদন ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪০৬ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩০, ২০২১
ক্রিকেটার জাদেজার সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন মাধুরী অজয় জাদেজা-মাধুরী দীক্ষিত

৯০-এর দশকে ভারতীয় ক্রিকেটের ‘হ্যান্ডসাম বয়’ অজয় জাদেজার প্রেমে পড়েছিলেন সেসময়ের বলিউডের জনপ্রিয় নায়িকা মাধুরী দীক্ষিত। যদিও শেষ পর্যন্ত প্রেম থেকে সরে এসেছিলেন বলিউডের ‘চন্দ্রমুখী’।

জাদেজা আর মাধুরীর প্রেমের ঘটনাটি সেভাবে প্রকাশ্যে আসেনি। জানা যায়, একটি পত্রিকার ফটোশুটে প্রথম দেখা হয় দু’জনের। সেখান থেকেই জাদেজা-মাধুরীর বন্ধুত্বের সূত্রপাত। এরপর সেখান থেকেই প্রেমের পর্যায়েও চলে যান তারা।

জাদেজা তখন ভারতীয় ক্রিকেটের অন্যতম জনপ্রিয় তারকা। অন্যদিকে মাধুরীর ‘দিল তো পাগল হ্যায়’ সিনেমা মাত্র মুক্তি পেয়েছে। সিনেমাটি ব্লকবাস্টার হিট। এমন সময়ে স্বপ্নের জুটি হতে পারতেন জাদেজা-মাধুরী। কিন্তু বাধা হয়ে দাঁড়ায় পরিবার। সিনেমার মতোই জাদেজা-মাধুরীর সম্পর্ক বাধা দেখা দিল।

জাদেজা ক্রিকেটারের পাশাপাশি নওয়ানগরের রাজপরিবারের সন্তান। পুরো নাম অজয়সিংজি জাদেজা। তার দাদা কে এস রঞ্জিত সিংজির নামেই ক্রিকেটের রঞ্জি ট্রফি। যা ভারতের প্রথম শ্রেণির ঘরোয়া টুর্নামেন্ট।  

শোনা যায়, জাদেজার ক্যারিয়ার নিচের দিকে নামতে থাকে। এজন্য পরিবার সম্ভবত ভেবে নিয়েছিল, এর জন্য মাধুরীর সম্পর্কই দায়ী। এমন সময়ে জাদেজা তখন ক্রিকেটের সঙ্গে মন দিয়েছেন ফিল্মেও। মাধুরী নাকি জাদেজাকেও সাহায্যও করেন। প্রযোজক মহলে জাদেজার অভিনয়ের জন্য সুপারিশ করেছিলেন।

কিন্তু হঠাৎ ১৯৯৯ সালে পরিস্থিতি বদলে যায়। ম্যাচ গড়াপেটায় জাদেজার নাম জড়ালে মাধুরীর পরিবার বেঁকে বসে। অজয়-মাধুরীর সম্পর্ক নিয়ে এর আগে তারা আপত্তি না তুললেও গড়াপেটায় অভিযুক্তের সঙ্গে মেয়ের নাম জড়াক তা চাননি মাধুরীর বাবা-মা। মাধুরীও নাকি সেই সময়েই অজয়ের সঙ্গে সব রকম সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন করে যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান।

যুক্তরাষ্ট্রে শ্রীরাম নেনের সঙ্গে দেখা হয় মাধুরীর। ১৯৯৯ সালের অক্টোবরে বিয়ে করেন তারা। এর পরের বছর ২০০০ সালে বিয়ে করেন জাদেজাও। এতেই অসম্পূর্ণ থেকে যায় দুই তারকার প্রেমকাহিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৪০৬ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩০, ২০২১
এনএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।