ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১ আশ্বিন ১৪২৮, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭ সফর ১৪৪৩

বিনোদন

কানের লালগালিচায় নজর কাড়লেন বাঁধন

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯০১ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১
কানের লালগালিচায় নজর কাড়লেন বাঁধন বাঁধন

ইতিহাস গড়ে কান চলচ্চিত্র উৎসবের অফিসিয়াল বিভাগ ‘আঁ সার্তেইন রিগার্দ’-এ প্রথমবার জায়গা করে নিয়েছে বাংলাদেশি সিনেমা ‘রেহানা মরিয়ম নূর’।  

পরিচালক আবদুল্লাহ মোহাম্মদ সাদ ও অভিনেত্রী আজমেরী হক বাঁধনসহ উৎসবটিতে অংশ নিয়েছেন ‘রেহানা মরিয়ম নূর’র প্রযোজক জেরেমি চুয়া, সাউন্ড ইঞ্জিনিয়ার শৈব, কালারিস্ট চিন্ময়, প্রোডাকশন ডিজাইনার উজ্জ্বল, সিনেমাটোগ্রাফার তুহিন ও একজিকিউটিভ প্রোডিউসার বাবু।

 

তারা সবাই কানের আকর্ষণীয় লালগালিচার সম্মান পেয়েছেন। শুক্রবার (৯ জুলাই) স্থানীয় সময় রাত ৯টা ৪০ মিনিটে পালে দো ফেস্টিভ্যাল ভবনের সামনে লালগালিচা হাঁটেন তারা। তখন উৎসবে উপস্থিত সবার নজর কেড়ে নেন বাঁধন।

কাঁধখোলা ছাইরঙা গাউনে পরে লালগালিচায় জ্যোতি ছড়ান এই অভিনেত্রী। উপস্থিত আলোকচিত্রীরা তার সৌন্দর্যের ঝলকানি ক্যামেরাবন্দি করতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন। আর ভক্তদের উদ্দেশ্যে উড়ো চুমু ছুঁড়ে দেন বাঁধন।  

এর আগে গাড়ি থেকে নামার পর লালাগালিচায় আমন্ত্রণ জানিয়ে মাইক্রোফোনে ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ টিমের প্রত্যেকের নাম উচ্চারণ করা হয়। সিনেমাটি যে উৎসবের অফিসিয়াল বিভাগ ‘আঁ সার্তেইন রিগার্দ’-এ প্রদর্শিত হয়েছে তাও জানানো হয়। এরপর সবাই সাদ-বাঁধনের জন্য লালাগালিচা খালি করে দেন।

গত ০৭ জুলাই কানের পালে দো ফেস্টিভ্যাল ভবনের সাল দুবুসি হলে প্রথমবারের ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ প্রদর্শিত হয়। প্রদর্শনী শুরুর আগে সিনেমাটি দেখতে দর্শকদের লম্বা লাইন দেখা যায়। সিনেমা শেষে দর্শকরা দাঁড়িয়ে তালি দিয়ে সিনেমা সংশ্লিষ্টদের অভিবাদন জানান। এমন প্রাপ্তিতে সেখানে উপস্থিত অভিনেত্রী আজমেরী হক বাঁধন অশ্রুসিক্ত হয়ে পড়েন।

সাল দুবুসিতে গত ৮ জুলাই ‘রেহানা মরিয়ম নূর’ আবার দেখানো হয়। এছাড়া কান শহরের মাল্টিপ্লেক্স ‘সিনেয়ুম অরা’তেও আরেকটি প্রদর্শনী হয়।  

এক বছর বিরতি দিয়ে করোনা আবহে গত ৬ জুলাই পর্দা উঠে বিশ্ব চলচ্চিত্রের এই মিলনমেলার। মর্যাদাপূর্ণ কান চলচ্চিত্র উৎসবের ৭৪তম আসর চলবে আগামী ১৭ জুলাই পর্যন্ত।

বাংলাদেশ সময়: ১৯০০ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২১
জেআইএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa