ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ শ্রাবণ ১৪২৮, ০৫ আগস্ট ২০২১, ২৫ জিলহজ ১৪৪২

বিনোদন

নাসিরকে ধমক দিয়ে পরীমনি বলেন, ‘বেরিয়ে যা... তুই!’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৫৪ ঘণ্টা, জুন ২৪, ২০২১
নাসিরকে ধমক দিয়ে পরীমনি বলেন, ‘বেরিয়ে যা... তুই!’

ঢাকা: পরীমনির বোট ক্লাব কাণ্ডের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ওই ভিডিওতে দেখা যায়, ক্লাবে ঔদ্ধত্যপূর্ণ উশৃঙ্খল আচরণ করছেন পরীমনি।

আর সেখান থেকেই ঘটনার শুরু।  

বোট ক্লাবে পরীমনির সঙ্গে ছিলেন তার কস্টিউম ডিজাইনার জিমি, বন্ধু অমি ও এক তরুণী। এ সময় ক্লাবের এন্টারটেইনমেন্ট ও কালচারাল সম্পাদক ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদও সেখানে উপস্থিত ছিলেন।  

এক পর্যায়ে অধিক মদ্যপানে বেসামাল হয়ে পড়েন অভিনেত্রী পরীমনি। তাকে শান্ত করতে চেষ্টা করেন ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ। তাকে মদপানে বাধা দেন তিনি। বাধা পেয়ে নাসির উদ্দিনকে লক্ষ্য বোতল ছুড়ে মারেন পরীমনি। এরপর দুজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা শুরু হয়। এক পর্যায়ে পরীমনি উত্তেজিত হয়ে নাসির উদ্দিন মাহমুদকে বেরিয়ে যেতে বলেন। যদিও পরীমনি ওই ক্লাবের সদস্য নন।  

ভিডিওতে দেখা যায়, বারের ভেতরে টেবিলে পরীমনিদের পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন আহমেদ। বেসামাল পরীমনিকে তিনি বলেন, ‘হোয়াট ইজ দিস, প্লিজ স্টপ ইট, ডোন্ট ডু দিস, ইটস ঠু মাচ’ (এটা কী করছেন, দয়া করে থামুন, এভাবে খাবেন না, এটা খুব বাড়াবাড়ি)।  

এ সময় পরীমনি ক্ষিপ্ত হয়ে নাসির উদ্দিনকে ধমকের সুরে হাত নেড়ে বলতে থাকেন, ‘অ্যাই...। যা...যা...! বেরিয়ে যা... তুই!’

ঠিক এর কিছু আগে এক ওয়েটার ওই টেবিলেন সামনে এসে দাঁড়ান। তখন জিমি অমিরা চুপ করে দেখছিলেন।

ঘটনার চারদিন পর ব্যবসায়ী নাসির মাহমুদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ তোলেন পরীমনি। পরে সাভার থানায় লিখিত একটি অভিযোগ করেন। যা পরদিন- মামলা হিসেবে নথিভুক্ত হয়।  

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫০ ঘণ্টা, জুন ২৪, ২০২১
এসজেএ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa