ঢাকা, শনিবার, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ১২ জুন ২০২১, ০১ জিলকদ ১৪৪২

বিনোদন

‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’-এর ফার্স্টলুক প্রকাশ

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২৮ ঘণ্টা, জুন ১০, ২০২১
‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’-এর ফার্স্টলুক প্রকাশ

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আজীবন সংগ্রামের ঘটনাবহুল ত্যাগ ও অর্জনের আলোকচিত্র তুলে ধরে নির্মিত হতে যাচ্ছে পূর্ণদৈর্ঘ্য ডকুমেন্টরি চলচ্চিত্র ‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’।  

বৃহস্পতিবার (১০ জুন) প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান বর্ণ গ্রুপের পক্ষ থেকে ‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’-এর ফার্স্টলুক পোস্টার প্রকাশ করা হয়েছে।

পোস্টারটি ডিজাইন করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলার শিক্ষার্থী আহসানা অঙ্গনা।  

পূর্ণদৈর্ঘ্য ডকুমেন্টরিটির চিত্রনাট্যকার ও পরিচালক মনজুরুল ইসলাম মেঘ বলেন, গত চার মাস আগেই আমরা ডকুমেন্টরিটির কাজ শুরু করেছি। চিত্রনাট্য ও গবেষণার কাজ শেষ হয়েছে। এর দৈর্ঘ্য হবে মহান মুক্তিযুদ্ধের সালকে স্মৃতিময় করতে ৭১ মিনিট। মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে এই ডকুমেন্টরি মুক্তি পাবে চলতি বছরের ১৪ ডিসেম্বর।  

তিনি আরও জানান, ‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’-এ থাকবে স্বীকৃতিপ্রাপ্ত ২১ জন কবির কবিতা, ৭ জন গল্পকারের গল্প, ৬ জন বিখ্যাত পেইন্টারের বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে স্কেচ, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী ও কারাগারের রোজনামচা থেকে কোটেশন, বঙ্গবন্ধুর ভাষণ, আলোকচিত্র, বঙ্গবন্ধুর বড় কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বঙ্গবন্ধুর ছোট কন্যা শেখ রেহানার স্মৃতিচারণ এবং ১৫ আগস্টের শহীদদের আলোকচিত্র।

ডকুমেন্টরিটি নির্মাণ হচ্ছে বর্ণ প্রকাশ লি. কর্তৃক প্রকাশিত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১ হাজার ৩০০ ছবি সম্বলিত অ্যালবাম ‘ছবির ভাষায় মহানায়ক বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’-এর উপর ভিত্তি করে।

এর প্রযোজক আলহামরা নাসরিন হোসেন লুইজা বলেন, দীর্ঘ ৮ বছর পরিশ্রম করে নিজস্ব অর্থায়নে আমি প্রকাশ করেছি ‘ছবির ভাষায় মহানায়ক বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ বই। বুধবার (৯ জুন) তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সেমিনার কক্ষে বইটির মোড়ক উন্মোচন করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। তিনি বইটির প্রশংসা করেছেন। ডকুমেন্টরিটির বিষয়েও তিনি অবগত।

প্রযোজনা ও পরিবেশনা প্রতিষ্ঠান সিনেম্যাকিংয়ের ব্যানারে নির্মাণাধীন পূর্ণদৈর্ঘ্য ডকুমেন্টরি চলচ্চিত্র ‘ফাদার অব দ্য ন্যাশন’-এর গবেষণা টিমে কাজ করেছেন আহসানা অঙ্গনা, অয়ময় অরণ্য, ইমরান হোসেন, মুন্না, মো. রফিকুল ইসলাম ও মুক্তার হোসেন।

ডকুমেন্টরিটির উপদেষ্টা হিসেবে আছেন স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দ সৈনিক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. মনোরঞ্জন ঘোষাল এবং অধ্যাপক ড. এ. টি. এম. রেজাউল হক।  

বাংলাদেশ সময়: ২০২৮ ঘণ্টা, জুন ১০, ২০২১
জেআইএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa