bangla news

মাধুরী দীক্ষিতের যুগলবন্দী ২০ বছর

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১০-১৮ ৮:০০:০৪ পিএম
মাধুরী দীক্ষিত ও তার স্বামী ডা. শ্রীরাম নেনে

মাধুরী দীক্ষিত ও তার স্বামী ডা. শ্রীরাম নেনে

বলিউডের তারকা অভিনেত্রী মাধুরী দীক্ষিতের যুগলবন্দী জীবন একে একে ২০ বছর পেরিয়ে গেল। একসঙ্গে পথচলার দুই দশকপূর্তিতে স্বামী শ্রীরাম নেনের সঙ্গে চমৎকার কিছু ছবি ইন্সটাগ্রামে শেয়ার করে শুভেচ্ছা জানালেন তিনি।

বলিউডের ইতিহাসে অন্যতম সাড়া জাগানো অভিনেত্রী মাধুরী দীক্ষিত ৫২ বছর বয়সে এসেও তার রূপের দ্যুতি ও অভিনয়ের মাধুরীতে মুগ্ধ রেখেছেন দর্শক-ভক্তদের। 

মাধুরীর স্বামী শ্রীরাম নেনে পেশায় একজন ডাক্তার। বৃহস্পতিবার (১৭ অক্টোবর) তাদের বিশতম বিবাহবার্ষিকী। মাধুরীর দুই দশকের দাম্পত্য জীবন যে বেশ সুখী ও সফল, তা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তার শেয়ার করা ছবিগুলো দেখেই বোঝা যায়। বিবাহের দুই দশক পরও তাদের এতোটা প্রেম ও রোমাঞ্চ অনেকের চোখে সত্যিই ঈর্ষণীয় লাগতে পারে।

একসঙ্গে পথচলার ২০ বছর। ছবি: মাধুরী দীক্ষিতের ইন্সটাগ্রাম থেকে

বৃহস্পতিবার ইন্সটাগ্রামে শ্রীরামের সঙ্গে অবসর যাপনের দারুণ কিছু ছবি শেয়ার করে মাধুরী লেখেন, ‘একসঙ্গে ২০ বছর পার করলাম। যেন স্বপ্নের মধ্যে বাস করছি। একসঙ্গে বাচ্চাদের বড় করেছি, হাসিমুখে ঘর করেছি, আর সবার জন্যই জিনিসপত্র গড়ে তুলেছি।’  

মাধুরী আরও বলেন, তিনি জীবনের বাকিটা সময়ও তার আত্মার সঙ্গীর সাথে সুখে থাকতে চান। সেইসঙ্গে পৃথিবীকে বসবাসের জন্য আরেকটু ভালো করে তুলতে চান। 

৫২ বছর বয়সেও মাধুরী যেন শ্রীরামের চিরযুবা জীবনসঙ্গী

অভিনেতা রিতেশ দেশমুখ মাধুরীর ছবিতে মন্তব্য করেন, পৃথিবীর সবটুকু সুখ আপনাদের হোক।

মাধুরী ও শ্রীরাম ১৯৯৯ সালে গাঁটছড়া বাঁধেন। তাদের দু’টি ছেলে, অরিন ও রায়ান। 

এ মুহূর্তে এই সুখী দম্পতি দ্বীপরাষ্ট্র সিসিলিসে ছুটি কাটাচ্ছেন। আর তাদের দারুণ কিছু মুহূর্তের ছবি ও ভিডিও ভক্ত-স্বজনদের সঙ্গে শেয়ার করছেন সামাজিক মাধ্যমে। 

সম্প্রতি ‘পঞ্চক’ নামে একটি মারাঠি সিনেমার মধ্য দিয়ে প্রযোজক হিসেবে অভিষিক্ত হচ্ছেন মাধুরী দীক্ষিত। চলতি বছরে ‘টোটাল ধামাল’ ও ‘কলঙ্ক’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৫৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৮, ২০১৯
এমকেআর

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   বলিউড
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2019-10-18 20:00:04