ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৪ আশ্বিন ১৪২৬, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯
bangla news

প্রেমের কথা স্বীকার করলেন হুমা কুরেশি

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-০৯ ৮:৩৩:৩৮ পিএম
হুমা কুরেশি ও মুদাচ্ছর আজিজ

হুমা কুরেশি ও মুদাচ্ছর আজিজ

বলিউড অভিনেত্রী হুমা কুরেশি এক বছরেরও বেশি সময় ধরে ঢাক ঢাক গুড় গুড় করে অবশেষে প্রকাশ্যে বলেই ফেললেন ‘তোমাকে ভালোবাসি’। 

‘লেইলা’খ্যাত অভিনেত্রী হুমা কুরেশি এবং পরিচালক মুদাচ্ছর আজিজ পরস্পরকে ভালোবাসেন। এক বছরেরও বেশি সময় ধরে নাকি তাদের প্রেম চলছে। অথচ এতদিন এ বিষয়ে নিজেদের মুখে কুলুপ এটে রেখেছিলেন তারা। মুম্বাই মিররের প্রতিবেদন বলছে, ইন্ডাস্ট্রিতে তাদের ঘনিষ্ঠ বন্ধুরাও নাকি ব্যাপারটা জানতেন এবং তারা এই মধুর সম্পর্কের জন্য বেশ খুশিও।  

হুমা কুরেশি ও মুদাচ্ছর আজিজ

সম্প্রতি মুদাচ্ছরের জন্মদিনে হুমা কুরেশি তার ইনস্টাগ্রাম পেজে মনোরম কিছু ছবিসহ একটি পোস্ট দিয়েছেন। আর তাতেই পরিষ্কার হয়ে গেছে তাদের সম্পর্কের গভীরতা। 

হুমা তার ইনস্টাগ্রামে লেখেন, তোমার প্রতিটি কাজের জন্য এবং তুমি যে ধরণের মানুষ, তার জন্য আমি গর্বিত। হৃদয়ের অন্তঃস্থল থেকে আমি প্রার্থনা করি, তোমার সব স্বপ্ন সত্যি হোক। শুভ জন্মদিন। সাত সমুদ্র দূর হতে তোমাকে ভালোবাসা পাঠাচ্ছি। যতটা তুমি জানো, তার চেয়েও অনেক বেশি ভালোবাসি তোমাকে।

হুমা ও মুদাচ্ছর

জন্মদিনে এর চেয়ে বড় শুভেচ্ছা আর কী হতে পারে মুদাচ্ছরের জন্য? তিনিও চমৎকার উত্তর দেন, আমি অনেক ভাগ্যবান। তোমাকে ধন্যবাদ দেব না, কারণ সেটা কখনোই যথেষ্ট হবে না। তোমাকে অনেক ভালোবাসি।

এবছরের নববর্ষ তারা নাকি একসঙ্গে লন্ডনে উদযাপন করেছেন। সূত্র জানায়, তাদের বন্ধুরা সবই জানে। অবশেষে মুদাচ্ছরের জন্মদিনেই ব্যাপারটা ভক্তদের কাছে একদম খোলসা হয়ে গেল। 

হুমা কুরেশি

বলিউডের সিনেমা পরিচালক মুদাচ্ছর এখন ‘পতি পত্নী অউর উওহ’ রিমেক বানাচ্ছেন। এখানে অভিনয় করছেন কার্তিক আরিয়ান, ভূমি পেডনেকর ও অনন্যা পাণ্ডে। অন্যদিকে, হুমা কুরেশিকে সর্বশেষ দেখা গেছে নেটফ্লিক্সের ‘লেইলা’তে। এখন তিনি হলিউডের ‘আর্মি অব দ্য ডেড’ সিনেমার শুট করছেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৯, ২০১৯
এমকেআর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-09 20:33:38