bangla news
ঈদ আয়োজন

অভিনয় দিয়ে অভিনেত্রী হতে চাই: হিমি

ওমর ফারুক বিশাল, নিউজরুম এডিটর | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৮-১২ ১:৪০:৪৩ পিএম
হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরী

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরী

নাচ, গান, উপস্থাপনা, অভিনয়- সবগুলোই সমানতালে চালিয়ে যাচ্ছেন ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ ২০১৭’ প্রতিযোগিতা থেকে উঠে আসা আলোচিত মডেল-অভিনেত্রী জান্নাতুল সুমাইয়া হিমি। এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমে পরিচিত পাওয়ার পর থেকে নিয়মিত কাজ করছেন নাটক, স্বল্পদৈর্ঘ্য সিনেমা, নাচ, গান-ভিডিও ও বিজ্ঞাপনে। কাজ করেছেন সিনেমাতেও। করছেন উপস্থাপনাও। সেই ধারাবাহিকতায় ঈদুল আজহায় বেশ কিছু কাজ করেছেন প্রিয়দর্শিনী এই মডেল-অভিনেত্রী। কাজগুলো নিয়ে তার সঙ্গে কথা হয়েছে বাংলানিউজের। পাঠকদের জন্য তা তুলে ধরা হলো-

বাংলানিউজ: ঈদ মোবারক।
হিমি: ঈদ মোবারক। আপনি’সহ বাংলানিউজ সংশ্লিষ্ট সকলকে ঈদের শুভেচ্ছা।

বাংলানিউজ: ঈদে কাকে কী উপহার দিলেন? কার থেকে কী পেলেন, বলুন-
হিমি: ঈদে মা-মেয়ে পরস্পরকে সালোয়ার-কামিজ উপহার দিয়েছি। উপহার আর বিশেষভাবে কাউকে দেওয়া হয়নি। তবে নিজের জন্য বেশ কিছু জামা কিনেছি।

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরীবাংলানিউজ: ঈদ কী ঢাকায় করছেন? কী কোরবানি দিচ্ছেন?
হিমি: হ্যাঁ, ঈদ ঢাকাতেই করছি। বরাবরের মতো এবারও গরু কোরবানি দিচ্ছি।

বাংলানিউজ: ঈদ আয়োজনে কী কী কাজ করলেন?
হিমি: নাচ, গান, উপস্থাপনা, নাটক, গান-ভিডিও, ঈদ ধারাবাহিক মিলিয়ে বেশ কিছু কাজই করেছি। এর মধ্যে আমার উপস্থাপনায় দুটি অনুষ্ঠান ঈদে প্রচার হবে। বিটিভির অনুষ্ঠানটি ‘বক্স অফিস’ নামে প্রচার হবে। আমি এখানে কয়েকটি নতুন সিনেমা নিয়ে কথা বলেছি। এছাড়া এনটিভির ‘রূপালী পর্দার গান’ অনুষ্ঠানে আমার উপস্থাপনায় কয়েকটি সিনেমার গান দেখানো হবে। পাশাপাশি দীপ্ত টিভির ‘সাত রঙের ছন্দ’ শিরোনামের একটি নাচের অনুষ্ঠান করেছি। অনুষ্ঠানগুলো প্রচারের সময় এখনো চূড়ান্ত হয়নি।

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরীবাংলানিউজ: আপনি তো একটি ঈদ ধারাবাহিকে কাজ করছেন। কাজটি সম্পর্কে জানতে চাই- 

হিমি: গাজী টিভির একটি ঈদ ধারাবাহিকে কাজ করছি। এবারের পর্বটির নাম ‘মানসম্মান শেষ’। এটি তিন ভাই ও একটি মেয়ের গল্পে কমেডি ঘরানার ধারাবাহিক। আমি ছাড়াও এতে অভিনয় করেছেন মোশাররফ করিম, সাজু খাদেম, কচি খন্দকার, আমিরুল ইসলাম প্রমুখ। এই ধারাবাহিকের আগের পর্বগুলো ‘ওরে বাবা মানসম্মান’, ‘মানসম্মান তোমাকে সালাম’ শিরোনামে প্রচার হয়েছিল।

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরীবাংলানিউজ: বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে নির্মিত দুটি নাটকে কাজ করলেন। কাজ দুটি সম্পর্কে বলুন-

হিমি: বিটিভির জন্য নির্মিত নাটকটির নাম ‘চলো যাই তীর্থস্থানে’। এখানে তীর্থস্থান বলতে টুঙ্গিপাড়াকে বোঝানো হয়েছে। বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে এক ঘণ্টার এই নাটকটি নির্মাণ করেছেন এলমা রুমা। এতে আমি ছাড়াও অভিনয় করেছেন তানভীর, আজিজুল হাকিম প্রমুখ। এছাড়া বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে এটিএন বাংলার জন্য নির্মিত নাটকটির নাম ‘সেদিন শ্রাবণের মেঘ ছিল’। এতে আরও অভিনয় করেছেন রণক ইকরাম, আজাদ আবুল কালাম প্রমুখ। রাজিবুল ইসলাম রাজিবের পরিচালনায় এই নাটকটি ১৫ আগস্ট এটিএন বাংলায় প্রচার হবে। কাজ দুটি করে নিজের মধ্যে বেশ ভালোলাগা কাজ করেছে।

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরীবাংলানিউজ: সিনেমা নিয়ে আপনার অনেক স্বপ্ন। কিন্তু এখানে কাজ করতে গেলে তো অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। এগুলোকে ডিঙিয়ে নিজেকে মেলে ধরার আত্মবিশ্বাস আছে তো?

হিমি: আমি অভিনয় দিয়ে অভিনেত্রী হতে চাই। নিজেকে বিলিয়ে দিয়ে কিছু করতে চাই না। অর্থাৎ সততার সঙ্গে কাজ করে এগোতে চাই। এটা ধরে রেখে যতটুকু সম্ভব কাজ করে যাবো। বলে রাখি, অনেক সিনেমার প্রস্তাব পাই। অনেক…। কিন্তু বিশেষ শর্ত তথা সঙ্গত কিছু কারণে প্রস্তাবগুলো ফিরিয়ে দিতে হচ্ছে।

হিমি। ছবি: রাজীন চৌধুরীবাংলানিউজ:  অভিনেত্রী হিসেবে নিজের অবস্থানটা কোথায় দেখতে চান?
হিমি: কোনো নির্মাতা তার সেরা একটা গল্পের জন্য প্রথমেই যেনো আমাকে চিন্তা করেন অথবা আমাকে চিন্তা করেই যেনো তার সেরা একটা কাজের কথা চিন্তা করেন- আমি এই স্বপ্নটা দেখি। অর্থাৎ গুরুত্বপূর্ণ তথা বিশেষ বিশেষ চরিত্রের অভিনেত্রী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করতে চাই। 

বাংলানিউজ: আপনি তো দীর্ঘদিন গান শিখেছেন। তাও নজরুলসঙ্গীত। এখন অভিনয় নিয়ে বেশি ভাবছেন। আগামীতে গান নিয়ে কোনো পরিকল্পনা আছে?

হিমি: হ্যাঁ, আমি শৈশব থেকে গানের মানুষ। কচিকাচার আসরে পাঁচ বছর, ছায়ানটে তিন বছর নজরুলসঙ্গীত শিখেছি। এছাড়া বিশিষ্ট নজরুল সঙ্গীতশিল্পী ফেরদৌস আরার কাছে নজরুলসঙ্গীতের তালিম নিয়েছি। তাই গানের প্রতি আমার দুর্বলতা একটু বেশি’ই। অভিনয় নিয়ে ব্যস্ততা বেশি হলেও গান নিয়ে আগামীতে পরিকল্পনা আছে। মানে, দর্শকের জন্য অভিনয় আর শ্রোতার জন্য আমার গান বেজে উঠবেই। সেজন্য খুব বেশি না হলেও এখনো বাসায় রেওয়াজ করি।

বাংলানিউজ: মিডিয়াতে কাজ করছেন। এক্ষেত্রে কার অনুপ্রেরণা-সহযোগিতা সবচেয়ে বেশি পাচ্ছেন?

হিমি: মা-বাবা, ভাইয়া- এককথায় পরিবারের সবার প্রেরণাই পাচ্ছি। বিশেষ করে মা আমার পেছনে শ্রমটা দিচ্ছেন বেশি। আব্বু দেশের বাহিরে থাকার কারণে সেই সুযোগটা পাই না। ভাইয়া কাজের ক্ষেত্রে অনেক সহযোগিতা করে থাকেন। সবমিলিয়ে আমি একজন ভাগ্যসুপ্রসন্ন মানুষ।

বাংলানিউজ: আপনার জন্য অনেক শুভকামনা। আবারও ঈদ মোবারক।
হিমি: ধন্যবাদ। আপনাকে এবং বাংলানিউজের সবাইকে আবারও ঈদের শুভেচ্ছা। সবার ঈদ বরকতময় হোক।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৪০ ঘণ্টা, আগস্ট ১২, ২০১৯
ওএফবি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   নাটক
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-08-12 13:40:43