ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ৩০ মে ২০২৪, ২১ জিলকদ ১৪৪৫

বিনোদন

‘পদ্মাবতী’র শুটিংয়ে ভাংচুর, বানসালিকে চপেটাঘাত

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭০১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৮, ২০১৭
‘পদ্মাবতী’র শুটিংয়ে ভাংচুর, বানসালিকে চপেটাঘাত (বাঁ থেকে) সঞ্জয়লীলা বানসালি ও ‘পদ্মাবতী’র শুটিংস্পট (ছবি: সংগৃহীত)

সঞ্জয়লীলা বানসালির ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটের ছবি ‘পদ্মাবতী’র শুটিংয়ে বাধা দিয়েছে কার্নি সেনা নামে রাজপুত গ্রুপের একদল কর্মী। বিশৃঙ্খলা সৃ্ষ্টি ছাড়াও ক্ষিপ্ত হয়ে জয়গড় কেল্লায় ছবিটির সেটে ভাংচুর করেছে তারা। সেই সঙ্গে পরিচালক বানসালিকে চপেটাঘাত ও লাঞ্ছিত করা হয়। শুক্রবার দুপুরে (২৭ জানুয়ারি) এ ঘটনা ঘটে।

অভিযোগ উঠেছে, ‘পদ্মাবতী’তে ভুল তথ্য তুলে ধরা হচ্ছে। এ কারণে কার্নি সেনার কর্মীরা সমবেত হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।

এরপর সেট, ক্যামেরা ও শুটিংয়ের অন্যান্য সরঞ্জামাদি ভেঙে ফেলে তারা। সংগঠনটির আঞ্চলিক সভাপতি নারায়ণ সিং বলেছেন, ‘ভুল তথ্য উপস্থাপনের বিরোধিতা করে নির্মাতাকে সাবধান হতে বলেছিলাম। এর শুটিং হচ্ছে জেনে আমরা একত্র হয়ে প্রতিবাদ জানিয়েছি। ’

আরেক কর্মী বিক্রম সিং বলেন, ‘পদ্মাবতী সম্পর্কে ভুল তথ্য দেওয়া হচ্ছে এ ছবিতে। আমাদের মূল প্রতিবাদ ঐতিহাসিক ঘটনা বিকৃতির বিরুদ্ধে। এটা কোনোভাবেই মেনে নেবো না। ’ তার অভিযোগ, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য আকাশে ফাঁকা গুলি ছোঁড়ায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। তখনই ভাংচুরের ঘটনা ঘটে। এ সময় কার্নি সেনার পাঁচ কর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তবে পুলিশ এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে। ডিসিপি নর্থ অংশুমান ভোমিয়া জানিয়েছেন, শুটিং থামিয়ে দেওয়ার কারণে বানসালি ও তার কলাকুশলীরা কার্নি সেনাকে আশ্বস্ত করে, তাদের দাবি গুরুত্বের সঙ্গে নেওয়া হবে। কিন্তু পরিস্থিতি প্রতিকূল দেখে জয়গড়ে আর দৃশ্যধারণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা।

রাজস্থানে ‘পদ্মাবতী’র দ্বিতীয় ধাপের চিত্রায়ন করতে ইউনিট নিয়ে গিয়েছিলেন বানসালি। পদ্মাবতী ও আলাউদ্দিন খিলজির মধ্যকার স্বপ্নের একটি দৃশ্যের কাজ হওয়ার কথা ছিলো এখানে। কিন্তু রাজস্থানের বাসিন্দাদের কাছে রানী পদ্মিনী পবিত্র। এ কারণে দু’জনের প্রেমের দৃশ্য প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে কার্নি সেনা।
 
‘পদ্মাবতী’র শুটিংয়ে বিশৃঙ্খলা (ছবি: সংগৃহীত)ছবিটির গল্পে দেখানো হবে ছিত্তোরগড় কেল্লায় সৈন্যসামন্ত নিয়ে হাজির হওয়া আলাউদ্দিন খিলজিকে ফিরিয়ে দেন রানী পদ্মিনী। এ চরিত্রে দীপিকা পাড়ুকোন ও আলাউদ্দিন খিলজির ভূমিকায় দেখা যাবে রণবীর সিংকে। পদ্মাবতীর স্বামী রাজা রাওয়াল রতন সিং চরিত্রে আছেন শহিদ কাপুর। ছবিটি মুক্তি পাবে এ বছরের ১৭ নভেম্বর।

কার্নি সেনার রাজ্য সভাপতি মহিপাল মাকরানা বলেছেন, ‘ইতিহাসমূলক বিভিন্ন গ্রন্থে ছিত্তোরের রানীর সাহসী দৃষ্টান্তের কথা উল্লেখ আছে। তাই আমরা জীবন থাকতে এমন আদর্শ নারীর সম্মান ও মর্যাদা নিয়ে প্রতারণা ও মিথ্যা ফেরি করতে দিতে পারি না। ’

এদিকে সঞ্জয়লীলা বানসালির প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন বলিউড তারকারা। ‘আই স্ট্যান্ড বাই এসএলবি’ হ্যাশট্যাগ টুইটারে ট্রেন্ডিংয়ে ছিলো শুক্রবার। অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, আনুশকা শর্মা, আলিয়া ভাট, সোনম কাপুর, পরিণীতি চোপড়া, প্রীতি জিনতা, সোহা আলি খান, হুমা কুরেশি, অভিনেতা হৃতিক রোশন, ফারহান আখতার, ঋষি কাপুর, নির্মাতা করণ জোহরসহ অনেকে টুইট করেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৮, ২০১৭
জেএইচ/এসও

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।