ঢাকা, সোমবার, ১৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৩ আগস্ট ২০২০, ১২ জিলহজ ১৪৪১

বিনোদন

মুক্তিযুদ্ধের তথ্যচিত্র

‘একাত্তরের বরিশাল’

বিনোদন প্রতিবেদক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১১-০৪-০৯ ০৭:৫৫:৩৭ পিএম
‘একাত্তরের বরিশাল’

তথ্যচিত্র ‘একাত্তরের বরিশাল’। রূপসী বাংলার কবি জীবনানন্দ দাশ, চারণ কবি মুকুন্দ দাস, চারণ দার্শনিক আরজ আলী মাতুব্বর, নারী জাগরণের কবি সুফিয়া কামালসহ আরো অনেক গুনী-মনীষীর শহর বরিশালে মুক্তিযুদ্ধের শুরুটা কিভাবে হয়েছিল, স্থানীয় মুক্তিকামী সংগঠক-মুক্তিযোদ্ধারা কিভাবে পাকিস্তানী হায়নাদের প্রতিরোধে ঝাপিয়ে পড়েছিল তাই নিয়ে নির্মিত হয়েছে এ তথ্যচিত্রটি।

একই সঙ্গে এতে তুলে ধরা হয়েছে পাকিস্তানী মিলিটারী তাদের এদেশীয় রাজকার-আলবদর বা দালালরা কিভাবে বরিশাল শহরে ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে তার অনেক স্মৃতিচিহ্ন।

গত ৮ এপিল শুক্রবার সন্ধ্যায় রাজধানীর ছায়ানট সংস্কৃতি ভবনের মিলনায়তনে প্রদশত হয় ২০০১ সালে নির্মিত সাংবাদিক তৌফিক মারুফের এ তথ্যচিত্রটি। স্বাধীনতার ৪০ বছর উদযাপন উপলক্ষে ঐতিহ্য চর্চার উদ্যোগ ‘দক্ষিণা’ এ প্রদর্শনীর আয়োজন করে। সহায়তা করে অমৃত কনজুমার ফুড প্রোডাক্টস লিমিটেড। আয়োজনের অংশ হিসাবে ছিল আলোচনা ও সাংস্কুতিক অনুষ্ঠান ও শিশু চিত্রাংকন প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরনী। অনুষ্ঠানে বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র শওকত হোসেন হিরন, কবি আসাদ চৌধুরী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. সৈয়দ আজিজুল হক, ঢাকা কলেজের অধ্যক্ষ মো. সিরাজুল হক, উদীচীর কেন্দ্রীয় সংসদের সহসভাপতি বদিউর রহমান, ছড়াকার দীপংকর চক্রবর্তী সহ বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

বরিশালের সিটি মেয়র তার বক্তৃতায় বলেন, বরিশালের মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিচিহ্ন  রক্ষায় উদ্যোগ নেওয়া হবে। অন্যান্য ঐতিহ্য রক্ষায়ও তিনি সচেতন আছেন। তিনি এক্ষেত্রে সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

কবি আসাদ চৌধুরী বলেন, ঐতিহ্য সংরক্ষণ ও চর্চার মাধ্যমে নতুন প্রজšে§র কাছে আমাদের সমৃদ্ধ ইতিহাস তুলে ধরতে হবে। তুলে ধরতে হবে কবি জীবনানন্দ দাশ, মুকুন্দ দাস, আরজ আলী মাতুব্বর, সুফিয়া কামালদের মতো গুনী-মনীষীর জীবন-দর্শন।

অনুষ্ঠানে ‘একাত্তরের বরিশাল’র নির্মাতা তৌফিক মারুফ সরকার ও অতিথিদের কাছে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিচিহ্নগুলো  দ্রুত সংরক্ষণের পদক্ষেপ নেওয়া অনুরোধ জানান।

অনুষ্ঠানে মুক্তিযুদ্ধ ও দেশত্বরোধক সঙ্গীত পরিবেশন করেন শামীমা মাসউদ মুন্নী, মৃদুলা সমদ্দার ও লুৎফুন্নাহার পাখি। আবৃত্তি করেন মারিফ বাপ্পী ও নালন্দার  শিক্ষার্থী মিš§য়ী ঋজুতি। নৃত্য পরিবেশন করে ঈভান শাহরিয়ার সোহাগের ‘নৃত্যভূমি’র সদস্যরা।

বাংলাদেশ সময় ১৯৩০, এপ্রিল ০৯, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa