ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

নির্বাচন ও ইসি

সহিংসতা ছাড়াই শেষ হলো কুসিকের ভোটগ্রহণ

বাংলানিউজ টিম | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০০ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২২
সহিংসতা ছাড়াই শেষ হলো কুসিকের ভোটগ্রহণ

কুমিল্লা: কোনো ধরনের সহিংসতা ছাড়াই শেষ হয়েছে বহুল আলোচিত কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের (কুসিক) ভোটগ্রহণ। নানা কারণে গুরুত্বপূর্ণ এ নির্বাচনে দুই-একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া তেমন কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।

 তবে ইভিএমে ভোট দেওয়া নিয়ে ভোগান্তি ও অসন্তোষের কথা জানিয়েছেন সাধারণ ভোটাররা।

বুধবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ১০৫টি কেন্দ্রের ৬৪০টি ভোটকক্ষে এ ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

মেয়র প্রার্থীদের সবাই নির্বাচনের পরিবেশ ইতিবাচক বলেছেন। তবে কয়েকটি কেন্দ্রে ইভিএমে শুধু নৌকা প্রতীক থাকার বিষয়টি আলোচনায় আসে। কিন্তু এ নিয়ে কোনো প্রার্থীকে অভিযোগ করতে দেখা যায়নি।  

নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার শাহেদুন্নবী চৌধুরী বলেছেন, নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হয়েছে। কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।  

এ নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী পাঁচ জন। তারা হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত আরফানুল হক রিফাত (নৌকা), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মো. রাশেদুল ইসলাম (হাতপাখা), স্বতন্ত্র হিসেবে কামরুল আহসান বাবুল (হরিণ), মো. মনিরুল হক সাক্কু (সাবেক বিএনপি নেতা ও দুই বারের মেয়র) (ঘড়ি) ও মোহাম্মদ নিজাম উদ্দিন কায়সার (ঘোড়া)।  

এছাড়া সাধারণ কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর মিলে প্রার্থীর সংখ্যা ১৪০ জন।  ৫ ও ১০ নম্বর ওয়ার্ডে দুই কাউন্সিলর প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

কুসিকের ২৭টি ওয়ার্ডে মোট ভোটার ২ লাখ ২৯ হাজার ৯২০ জন। এদের মধ্যে ১ লাখ ১৭ হাজার ৯২ জন নারী ভোটার এবং পুরুষ ভোটার ১ লাখ ১২ হাজার ৮২৬ জন। এছাড়া তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন দুইজন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৫৭ ঘণ্টা, জুন ১৫, ২০২২
এসএইচডি/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa