ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৭ মে ২০২২, ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩

নির্বাচন ও ইসি

পরাজিত ২ প্রার্থীর সহিংসতায় ‘আতঙ্কে’ বৃদ্ধের মৃত্যু

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬২২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৮, ২০২১
পরাজিত ২ প্রার্থীর সহিংসতায় ‘আতঙ্কে’ বৃদ্ধের মৃত্যু

মাদারীপুর: মাদারীপুর জেলার রাজৈর উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের পর পরাজিত দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এতে আতঙ্কিত হয়ে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে নুর ইসলাম নামে এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

 

সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত দফায় দফায় রাজৈর উপজেলার পাইকপাড়া ইউনিয়নের বৈরাগীর বাজার এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে আহত হন অন্তত ২০ জন।
 
মৃত নুর ইসলামের (৬২) বাড়ি পাইকপাড়া ইউনিয়নের শ্রীরামপুর গ্রামে।

জানা গেছে, চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচনে পাইকপাড়া ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে অংশ নিয়ে বিজয়ী হন শাজাহান মোল্লা। এ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে পরাজিত হন মশিউর রহমান মুন্না ও সাহাদাত হোসেন। পরাজয়ের জন্য মশিউর রহমান মুন্না ও সাহাদাত হোসেন একে অপরকে দোষারোপ করেন। বৈরাগীর বাজার এলাকায় প্রথমে তাদের কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। পরে উভয়পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। সংঘর্ষে আহত হন অন্তত ২০ জন। এসময় বেশ কয়েকটি ঘরবাড়িতে ভাঙচুর ও লুটপাট করা হয়। সংঘর্ষের ঘটনায় আতঙ্কে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে নুর ইসলাম নামে এক বৃদ্ধের মৃত্যু হয়।  

এছাড়া দু’টি ঘরে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। আহতদের উদ্ধার করে রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

মাদারীপুরের রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শেখ সাদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬১৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৭, ২০২১
এসআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa