ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৬ মাঘ ১৪২৯, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ০৮ রজব ১৪৪৪

নির্বাচন ও ইসি

নিজের হাতে আইন তুলে নেবেন না

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০০৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ৭, ২০২১
নিজের হাতে আইন তুলে নেবেন না মতবিনিময়সভা

নরসিংদী: নির্বাচন কমিশনার (ইসি) বেগম কবিতা খানম বলেছেন, ভোটকেন্দ্র দখল করে কোনো প্রচার-প্রচারণা চালানো যাবে না। নির্বাচনের দিন ভোটাররা কেন্দ্রে যাবে, ভোটের মাধ্যমে স্বাধীনভাবে তাদের মতামত প্রকাশ করবে।

এসময় নিজের হাতে কেউ আইন তুলে নেবেন না।  

রোববার (৭ নভেম্বর) দুপুরে নরসিংদী জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে নরসিংদী সদর ও রায়পুরা উপজেলার ইউনিয়ন পরিষদ সাধারণ নির্বাচন ২০২১ উপলক্ষে মতবিনিময় সভায় নির্বাচনে অংশ নেওয়া প্রার্থীদের তিনি এ আহ্বান জানান।

নির্বাচন কমিশনার প্রার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সবার বিবেককে জাগ্রত করতে হবে। আমাদের প্রতিহিংসার রাজনীতি থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। জনগণ যাকে চাইবে সেই নেতৃত্বে আসবে। জোর করে কোনো অধিকার আদায় করা যাবে না। নির্বাচনে সহিংসতা পরিহার করতে হবে। সবার সহযোগিতায় আগামী ১১ তারিখ সুষ্ঠু নির্বাচন আশা করছি আমি।

নরসিংদীর পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম বলেন, নরসিংদীর স্থানীয় নাগরিকরা চাইলেই এখানকার সংঘাত, সংঘর্ষ, টেঁটাযুদ্ধ ইত্যাদি বন্ধ করা সম্ভব। নির্বাচনে কেউ প্রভাব বিস্তার করতে পারবে না। সব প্রার্থী তাদের নির্বাচনী প্রচারণা নির্বিঘ্নে সম্পন্ন করছে। কেউ যদি বাঁধার সম্মুখীন হন আমাদের জানানো হলে আমরা সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নেব।

ইতোপূর্বে যারা চরাঞ্চলে সহিংসতায় জড়িত ছিল তাদের কয়েকজনকে গ্রেফতার ও তাদের ব্যবহৃত অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে। নির্বাচনী পরিবেশ সুষ্ঠু রাখার জন্য আমরা নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করছি। আগামী ১১ তারিখের নির্বাচনে জনগণ যাতে নির্বিঘ্নে ভোট দিতে পারে সেই পরিবেশ আমরা তৈরি করেছি ইতোমধ্যে।

নরসিংদীর জেলা প্রশাসক আবু নইম মোহাম্মদ মারুফ খানের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- নরসিংদীর পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম, ঢাকা অঞ্চলের আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মাহফুজা আক্তার, নরসিংদী জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মেজবাহ আহমেদ, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আফতাব উদ্দিন ভূঁইয়া প্রমুখ। সভায় কর্তকর্তারা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে অংশ নেওয়া প্রতিদ্বন্দ্বীদের বক্তব্য শুনে পরামর্শ দেন।

জানা যায়, আগামী ১১ নভেম্বর নরসিংদী সদরে দুইটি এবং রায়পুরায় ১০টি ইউনিয়ন পরিষদে ইউপি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এই নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ১৮ মে রায়পুরার পাড়াতলী ইউনিয়নে দুইজন, এর পাঁচদিনের মাথায় আরও একজন এবং চলতি মাসের ৩ নভেম্বর সদর উপজেলার আলোকবালীতে তিনজন নিহত হয়।

বাংলাদেশ সময়: ২০০২ ঘণ্টা, নভেম্বর ০৭, ২০২১
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa